ফাইল ছবি

স্টাফ রিপোর্টার, মালদহ: রোগীর মৃত্যুকে ঘিরে ফের উত্তপ্ত মালদহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল৷ রোগীর আত্মীয়দের সঙ্গে জুনিয়র চিকিৎসকদের ধাক্কাধাক্কিও হয় বলে জানা যায়৷ এই ঘটনার প্রতিবাদে নামে জুনিয়র ডাক্তাররা৷ পরিস্থিতি মোকাবিলায় ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয় ইংরেজবাজার থানার পুলিশ৷

সূত্রের খবর, মৃত ওই রোগীর নাম বীরেন সরকার (৯০)৷ বাড়ি ইংরেজবাজার থানার রবীন্দ্র ভবন এলাকায়। পরিবার সূত্রে জানা যায়, বীরেন সরকার শ্বাসকষ্ট নিয়ে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা বেলায় ভর্তি হন। অভিযোগ, রাত্রিবেলায় তার অবস্থা খারাপ হতে থাকলে বারবার চিকিৎসককে ডাকলেও তারা কোনও রোগ ভ্রূক্ষেপ করেনি। এরপর রাত্রিবেলায় রোগীর মৃত্যু হয়।

ঘটনার প্রতিবাদে রোগীর আত্মীয়রা সেই সময় উপস্থিত জুনিয়র ডাক্তারদের সঙ্গে ধাক্কাধাক্কি করতে শুরু করে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয় ইংরেজবাজার থানার পুলিশ। সমগ্র ঘটনার প্রতিবাদে জুনিয়র ডাক্তাররা এদিন পেন ডাউন করে। যার ফলে দূরদূরান্ত থেকে আসা বহু রোগী সমস্যায় পড়ে৷ গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

এদিকে হাসপাতালের জুনিয়র চিকিৎসকদের আন্দোলন থেকে বিরত থাকার আবেদন জানান মালদহ মেডিক্যাল কলেজ কর্তৃপক্ষ। হস্তক্ষেপ করেন মালদহের জেলা শাসক কৌশিক ভট্টাচার্য্য। জুনিয়র চিকিৎসকদের হেনস্থা করার ঘটনায় অভিযুক্তদের গ্রেফতারের প্রতিশ্রুতি দেওয়ার পর কাজে যোগ দিয়েছেন জুনিয়র ডাক্তাররা। তবে শুক্রবার দুপুর ১২টার মধ্যে অভিযুক্তদের গ্রেফতার না করা হলে পেন ডাউন আন্দোলন পুনরায় শুরু করবেন বলে জানান জুনিয়ার ডাক্তাররা৷