নিজেকে সুন্দর করে তুলতে নামি-দামি মেকআপ সামগ্রীর ব্যবহার কম-বেশি সকলেই করে থাকেন।

একথা কি জানা আছে এসব মেকআপকে যদি দিন শেষে ঠিক মতো না উঠানো হয়, তাহলে ত্বকের মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে? সেই সঙ্গে ত্বকের সৌন্দর্য কমতে শুরু করে।

কিন্তু বাজার চলতি রিমুভারে বিভিন্ন কেমিকাল মেশানো থাকে। তাই ঘরে তৈরি করে নিতে পারেন মেকআপ রিমুভার। যা একদিকে যেমন মেকআপও তুলবে, অন্যদিকে ত্বকের সৌন্দর্যও ধরে রাখতে সাহায্য করবে।

১. অলিভ অয়েল: দিনের শেষে ভাল করে মুখ ধুয়ে নেওয়ার পর পরিমাণ মতে অলিভ অয়েল তুলোয় নিয়ে ভাল করে মেক আপ তুলে নিন। এই তেলটি কম সময়ে মেকআপ তো তোলেই, সেই সঙ্গে ত্বকের অন্দর পুষ্টির ঘাটতিও দূর করে। ফলে ত্বকের ক্ষতি হওয়ার আশঙ্কা একেবারে কমে যায়। প্রসঙ্গত, আই লাইনার এবং লিপস্টিক তুলতেও কাজে লাগানা যেতে পারে অলিভ অয়েলকে।

আরও পড়ুন- পুরুষালি সমস্যার ঘরোয়া উপায়ে সমাধান

২. নারকেল তেল: মেকআপ রিমুভ করতে এই তেলটিরও কোনো বিকল্প হয় না বললেই চলে। তাই এবার থেকে ত্বকের পরিচর্যায় নারকেল তেলকে কাজে লাগাতে ভুলবেন না যেন! একাধিক গবেষণায় দেখা গেছে নানাবিধ ত্বকের রোগ এবং সংক্রমণকে দূরে রাখতে এবং সার্বিকভাবে স্কিনের উন্নতি ঘটানোর মধ্যে দিয়ে সৌন্দর্য বাড়াতে নারকেল তেল বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে।

আরও পড়ুন- অতিরিক্ত ঘাম থেকে মুক্তি পেতে ৩টি টিপস

৩. এসেনশিয়াল অয়েল: বেশ কিছু স্টাডিতে দেখা গেছে বাজারে যেসব এসেনশিয়াল অয়েল পাওয়া যায়, তার কোনওটাকে কাজে লাগিয়েও মেকআপ তুলতে পারেন। বিশেষত যারা ব্রণর সমস্যা ভুগছেন, তারা যদি এই ঘরোয়া টোটকাটিকে কাজে লাগান, তাহলে এই ধরনের ত্বকের রোগের প্রকোপ তো কমেই, সেই সঙ্গে মেকআপ ওটানোর কাজটাও হয়ে যায়।

আরও পড়ুন- রাতের ঘুমে মেয়েদের অন্তর্বাস পড়া কি ক্ষতিকর?

৪. মধু: একেবারেই ঠিক শুনেছেন! এই প্রকৃতিক উপাদানটি মেকআপ তোলার পাশাপাশি ব্রণর সমস্যা কমাতে, ত্বকের আর্দ্রতা দূর করতে এবং সার্বিকভাবে সৌন্দর্য বাড়াতে বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে।

৫. বেবি শ্যাম্পু: পরিমাণ মতো বেবি শ্যাম্পু নিয়ে তাতে অল্প পরিমাণে জল মিশিয়ে সারা মুখে ভাল করে লাগিয়ে ধুয়ে ফলতে পারেন। এই ঘরোয়া টোটকাটি মেক আপ তুলতে কিন্তু দারুন কাজে আসে। এই ধরেনর প্রডাক্টে যেহেতু একেবারে কম পরিমাণে কেমিকাল থাকে, তাই ত্বকের কোনও ধরনের ক্ষতি হওয়ার আশঙ্কাও থাকে না।

আরও পড়ুন- কীভাবে চুম্বন করছেন? তা বলে দেবে কাছের মানুষের ভালোবাসা কতটা?

৬. পেট্রোলিয়াম জেলি: তুলোয় অল্প পরিমাণে পেট্রোলিয়াম জেলি লাগিয়ে তা দিয়ে ধীরে ধীরে মাসাজ করলে মেকআপ উঠে যেতে একেবারেই সময় লাগে না। সেই সঙ্গে ত্বকের হারিয়ে যাওয়া আর্দ্রতাও ফিরে আসে। তাই ত্বকের সৌন্দর্যকে ধরে রাখতে এবার থেকে কেমিকাল মিশ্রিত মেকআপ রিমুভার ব্যবহার করা বন্ধ করুন।

আরও পড়ুন- ব্যায়াম ছাড়া ভুঁড়ি কমানোর সহজ ৮টি টিপস

৭. বেবি অয়েল: যে কোনও ধরনের মেক আপ তুলে ফেলতে বেবি অয়েলের কোনও বিকল্প নেই বললেই চলে। তাই তো ডার্মালোজিস্টরা বাজার চলতি মেকআপ রিমুভার ব্যবহারের পরিবর্তে এই তেলটি মুখে লাগানোর পরামর্শ দিয়ে থাকেন। এক্ষেত্রে তুলোয় অল্প পরিমাণ বেবি অয়েল নিয়ে ভাল করে মাসাজ করলেই নিমেষে মেকআপ উঠে যায়।