স্টাফ রিপোর্টার, বারাকপুর: ঘরে কেউ না থাকার সুযোগে দুঃসাহসিক চুরির ঘটনা ঘটল উত্তর ২৪ পরগণার দত্তপুকুর থানার লরিকা আবাসনে৷ খোয়া গিয়েছে নগদ টাকা সহ ভরি ভরি সোনার গয়না৷ দত্তপুকুর থানার পুলিশ ঘটনার তদন্তে নেমেছে৷

জানা গিয়েছে, গৃহকর্তা বিল্টু শীল শ্যুটিংয়ের কাজে কলকাতায় ব্যস্ত ছিলেন৷ তাঁর স্ত্রী সুমনা শীল একমাত্র মেয়েকে নিয়ে বাপেরবাড়ি গিয়েছিলেন। সেই সুযোগটাকে কাজে লাগিয়ে রবিবার রাতে ওই ফ্লাটে হানা দেয় দুষ্কৃতীরা৷ সোমবার ভোরে বিল্টু বাবু বাড়ি ফিরে ঘরের দরজা খুলতে গিয়ে লক্ষ করেন ওই দরজা ভিতর দিয়ে বন্ধ রয়েছে।

তখনই তাঁর সন্দেহ হয়৷ তাই তিনি আবাসনের নিরাপত্তারক্ষীদের এবং দত্তপুকুর থানায় খবর দেন। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে আসে৷ পুলিশের সামনেই বিল্টু বাবু দরজা ভেঙে ঘরের ভিতরে ঢোকেন। দেখেন লন্ডভন্ড হয়ে রয়েছে ঘরটি। নগদ টাকা সহ লক্ষাধিক টাকার সোনার গহনা নিয়ে পালিয়েছে দুষ্কৃতীরা।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই চোরের দলটি ঘরের কাঁচের জানালা ভেঙে ভিতরে ঢুকে লুটপাট চালিয়েছে৷ ঘটনার তদন্তে শুরু করেছে দত্তপুকুর থানার পুলিশ৷ ঘটনার পর থেকে ওই আবাসনের নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে৷