মুম্বই: সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর পর থেকে বারবার নেটিজেনদের নিশানায় পড়ছেন প্রযোজক-পরিচালক মহেশ ভাট। বিশেষ করে সুশান্তের বান্ধবী রিয়া চক্রবর্তীর সঙ্গে মহেশ ভাটের অতিরিক্ত ঘনিষ্ঠতার জন্যই প্রয়াত অভিনেতা অনুরাগীরা কটাক্ষ করছেন মহেশ ভাটকে। এমনকি নেপোটিজম বা স্বজনপোষণের অভিযোগ ভাট ক্যাম্পের দিকে উঠেছে। এবার আরো একটি অভিযোগ উঠল মহেশ ভাটের আসন্ন ছবি ‘সড়ক ২’ এর বিরুদ্ধে।

এবার অভিযোগ, ‘সড়ক ২’-এর পোস্টার হিন্দুধর্মের ভাবাবেগকে আঘাত করেছে। এই অভিযোগের ভিত্তিতে ভারতীয় দণ্ডবিধির ২৯৫ এ এবং ১২০ এ ধারায় মামলা করা হয়েছে মহেশ ভাটের বিরুদ্ধে। ছবির প্রধান চরিত্রে রয়েছেন আলিয়া ভাট। তাই বাদ যাননি তিনিও। সিকন্দরপুরের আচার্য চন্দ্র কিশোর পরাশর নামে এক ব্যক্তি এই অভিযোগ এনেছেন মহেশ ভাটের বিরুদ্ধে।

তাঁর দাবি সড়ক টু এর পোস্টার হিন্দু ধর্মের ভাবাবেগে আঘাত করেছে। অভিযোগকারীর আইনজীবী সোনু কুমার জানিয়েছেন ছবির পোস্টারে যেভাবে কৈলাস পর্বতকে দেখানো হয়েছে তা হিন্দু ধর্মের জন্য খুবই অপমানজনক। কারণ হিন্দু ধর্মের কাছে কৈলাস পর্বত হল মহাদেবের বাসস্থান। আর সেই জায়গাকে এভাবে মজার ছলে পোস্টারে ব্যবহার করায় হিন্দু ধর্মের ভাবাবেগকে আঘাত করা হয়েছে বলে মনে করছেন তিনি।

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি সুশান্তের পরিবার লঞ্চ করেছে নেপোমিটার অ্যাপ। নাম শুনেই বোঝা যায় যে এই অ্যাপটি নেপোটিজমের সঙ্গে সম্পর্কিত। নেপোমিটার অ্যাপটি পরিমাপ করবে কোন ছবির কাস্টে নেপোটিজম বা স্বজনপোষণের মাত্রা কতটা। কোনও ছবি মুক্তি পাওয়ার আগেই নেপোমিটার এই কাজ করবে এবং দর্শকদের জানাবে। অর্থাৎ কোন ছবিতে ফিল্মি পরিবার থেকে কজন অভিনেতা আছে তা পরিমাপ করেই বিচার হবে সেই ছবিতে কতটা নেপোটিজম রয়েছে।

সুশান্তের পরিবার থেকে লঞ্চ করা এই নতুন অ্যাপ নেপোমিটার সম্প্রতি ‘সড়ক ২’ ছবিটিতে স্বজনপোষণের মাত্রা ৯৮ শতাংশ রয়েছে বলে দাবি করেছে। কারণ এই ছবির চারটি গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে অভিনয় করেছেন ফিল্মি পরিবারের অভিনেতারা। এই চারটি চরিত্রে অভিনয় করেছেন আলিয়া ভাট, পূজা ভাট, আদিত্য রায় কাপুর, এবং সঞ্জয় দত্ত।

পুরনো সড়ক ছবিটি পরিচালনা করেছিলেন নানাভাই ভাট। সড়ক ২ পরিচালনা করেছেন মহেশ ভাট। প্রযোজক মুকেশ ভাট। আর সেই ভাট পরিবার থেকেই দুই অভিনেত্রী অর্থাৎ আলিয়া ও পূজা এই ছবিতে অভিনয় করেছেন। আর তাই নেপোমিটার দাবি করেছে এই ছবিতে স্বজনপোষণ রয়েছে ৯৮ শতাংশ।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ