মুম্বই: এক কৃষকের আত্মহত্যাকে ঘিরে চাঞ্চল্য৷ ক্ষেতে বিষ খেয়ে আত্মহত্যা এবং সুইসাইড নোটে এর জন্য দায়ী করা হয়েছে মোদী সরকারকে৷ কিষাণের কাছ থেকে পাওয়া এই সুইসাইড নোটে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীসহ আরও বেশ কয়েকজনের নাম রয়েছে৷ এবং তার এই আত্মহত্যার সিদ্ধান্তের পিছনে এদেরকে দায়ি করা হয়েছে, পাশাপাশি নিজের পরিবারের জন্য সাহায্যও দাবি করা হয়েছে এই নোটে৷

রাজুরওয়াড়ি গ্রামের ৫০ বছর বয়সী ওই কৃষকের নাম শঙ্কর ভাউরাও চায়রে বলে জানা গিয়েছে৷ আত্মহত্যার ১২ ঘন্টা পরে হাসপাতালের মর্গ তেকে তার দেহ নিতে অস্বীকার করে দেয় মৃতের পরিবার৷ পরিবারের সদস্যদের দাবি, হয় প্রধানমন্ত্রী এসে তাদের সহ্গে দেখা সমস্যার সমাধান করুন নাহলে এই দেহ তাদের হাতে তুলে দেওয়ার আগে রাজ্য সরকার তাদের হাতে সম্পূর্ণ ক্ষতিপূরণ তুলে দিক৷

জানা গিয়েছে, এদিন সকালে চায়রে সকালে ক্ষেতে একটি গাছে গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করে কিন্তু দড়িটি ছিঁড়ে যায়৷ এরপরেই সে বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করে৷ আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে হাসপাতালে নিয়ে আসে গ্রামবাসীরা৷ কিন্তু তার আগেই মারা যায় সে৷ তার কাছ থেকে একটি সুইসাইড নোট পাওয়া যায়৷ যেখানে সরকারি আধিকারিক, বিধায়ক, মন্ত্রী, সাংসদদের উপেক্ষার কথা লেখা আছে৷

তিনি লিখেছেন, তাঁর কাছে নয় একর জমি রয়েছে৷ কার্পাস ক্ষেতের জন্য তিনি সহকারী সমিতি থেকে ৯০হাজার টাকা এবং আরও তিন লাখ টাকা ঋণ নেন৷ কিন্তু ফসল নষ্ট হওয়ার কারণে ঋণ দেওয়া তাঁর পক্ষে অসম্ভব হয়ে ওঠে৷ আর তাই সে আত্মহত্যার পথ বেছে নেয় বলে জানিয়েছে৷