টোকিও: অতীতে বহুবার ভূমিকম্পে বিধ্বস্ত হয়েছে জাপান৷ ফের মঙ্গলবার ভয়াবহ কম্পনের সাক্ষী থাকল জাপান৷ ৬.৭ ম্যাগনিটিউড তীব্রতায় ভূমিকম্প হয় উত্তর-পশ্চিম জাপানে৷ জারি করা হয় সুনামি সতর্কবার্তা৷ খালি করে দেওয়া হয় উপকূলীয় এলাকা৷

তবে এই ভূমিকম্পে আহতের সংখ্যা ২১ বলে জানা গিয়েছে৷ ছড়িয়েছে আতঙ্কও৷ আহতদের মধ্যেই বেশিরভাগই ইয়ামাগাতা এলাকার৷ চিফ ক্যাবিনেট সেক্রেটারি ইয়োহাইড সুগা আফটারশকের বিষয়ে শহরবাসীকে আগে থেকেই সতর্ক বার্তা দিয়েছেন৷

পড়ুন: একের পর এক ভূমিকম্প, সোমবারের দুপুরে কাঁপল ইন্দোনেশিয়া

মিটিওরোলজিক্যাল এজেন্সির পক্ষ থেকে সতর্কবার্তা দিয়ে বলা হয়েছে, সমুদ্র উপকূলে প্রায় তিন ফিট উচ্চতায় ঢেউ আছড়ে পড়তে পারে৷ নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে, ইতিমধ্যেই বুলেট ট্রেন পরিষেবা বন্ধ রাখা হয়েছে৷ বহু জায়গায় বৈদ্যুতিক সংযোগও বিচ্ছিন্ন হয়ে গিয়েছে বলে জানা গিয়েছে৷ মিটিওরোলজিক্যাল এজেন্সির মতে, ইয়ামাগাতা এবং নিগাতার উপকূলীয় এলাকা ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে এই সুনামিতে৷

তবে নিউক্লিয়ার পাওয়ার প্ল্যান্টের ওপর কড়া নজর রাখা হয়েছে এবং সেক্ষেত্রে কোনও সমস্যা কিছু লক্ষ্য করা যায়নি বলেই জানিয়েছে পাবলিক ব্রডকাস্টার এনএইচকে৷

প্রসঙ্গত, অতীতে বারবার ভমিকম্পে বিধ্বস্ত হওয়ার নজির রয়েছে জাপানে৷ আর সেগুলি মাথায় রেখেই সুনামি সতর্কবার্তার পাশাপাশি জোর দেওয়া হচ্ছে নিরাপত্তা ব্যবস্থাতেও৷