স্টাফ রিপোর্টার, তমলুক: দিন যতই যাচ্ছে ততই বাড়ছে উদ্বেগ। কিছুতেই লাগাম টানা যাচ্ছে না করোনার সংক্রমণে। হু-হু করে বেড়েই চলেছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা।

আর এই অবস্থায় করোনা সংক্রমণের চেন ভাঙতে ফের লকডাউনের পথে হাঁটল পূর্ব মেদিনীপুর। এই জেলার তাম্রলিপ্ত পুরসভা এলাকায় প্রত্যেকদিন হু হু করে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্য। ইতিমধ্যেই রাজ্য সরকারের নির্দেশিকায় তাম্রলিপ্ত পুরসভার ৮ টি ওয়ার্ডকে কনটেন্টমেন্ট জোন হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। যার মধ্যে ২ টি ওয়ার্ডের সম্পূর্ণ এলাকা ও ৬ টি ওয়ার্ডের আংশিক এলাকা রয়েছে।

কিন্তু লকডাউন সেভাবে মানছেন না সবজান্তা মানুষজন। যারফলে জেলাজুড়ে অব্যাহত করোনার দাপট। আর এই অবস্থায় নতুন করে এই জেলায় লকডাউন কার্যকর করতে বৃহস্পতিবার তাম্রলিপ্ত পুরসভার তরফে তমলুক শহরের ব্যবসায়ী,প্রাক্তন কাউন্সিলর, জেলার প্রশাসনিক আধিকারিকদের নিয়ে একটি বৈঠকের আয়োজন করা হয়।

আর সেই বৈঠক থেকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে আগামীকাল অর্থাৎ শুক্রবার থেকে ১০ দিনের জন্য তমলুক শহরকে সম্পূর্ণ লকডাউনের আওতায় রাখা হবে। শুধুমাত্র মানুষের অসুবিধার কথা মাথায় রেখে সোমবার, বুধবার ও শুক্রবার সকাল ৭ টা থেকে ১০ টা পর্যন্ত প্রয়োজনীয় জিনিসপত্রর দোকান খোলা থাকবে বাকি দিন গুলিতে কোনও দোকানপাট খোলা রাখা যাবে না। মানতে হবে কমপ্লিট লকডাউন নিয়ম।

প্রশাসন সূত্রে খবর, দেশ সহ গোটা রাজ্য জুড়ে যেভাবে সংক্রমণ ছড়াচ্ছে তাতে ফের ললকডাউন না করলে কোনও ভাবেই করোনাভাইরাসের চেন ভাঙা সম্ভব হচ্ছে না। এই অবস্থায় অন্তত কিছুটা সুরাহা পেতে আগামীকাল থেকে টানা ১০ দিন সম্পূর্ণ তমলুক শহরে এই লকডাউন পক্রিয়া কার্যকর থাকবে। তারপর অবস্থা দেখে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। তবে ওষুধ দোকান সহ জরুরি পরিষেবাকে এই নিয়মের আওতা থেকে ছাড় দেওয়া হয়েছে।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ