কলকাতা: বিধানসভা অধিবেশনের সময় বাড়ানোর আবেদন জানিয়ে চিঠি দিল বাম এবং কংগ্রেস পরিষদীয় দল। কারণ বর্তমান সময়ে যে সমস্ত সমস্যাগুলি দেখা গিয়েছে সেগুলির নিয়ে আলোচনা করার জন্য এতটা সময় দরকার বলে চিঠির আর্জিতে যুক্তি দেখিয়েছেন তারা।

প্রশ্নোত্তর পর্ব, জিরো আওয়ারে এই এইসব বিষয়ে যথাযথ গুরুত্ব দেওয়ার কথা বলেছেন বিরোধী দুই পক্ষই। তবে এই অধিবেশনে এইসব পর্বগুলি থাকবে না বলে বিধানসভা পক্ষ থেকে জানানো হওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছে বিরোধীরা।

করোনা সংকটের মধ্যে আগামী ৯ এবং ১০ সেপ্টেম্বর বিধানসভার বাদল অধিবেশন বসছে। তাছাড়া বৃহস্পতিবার সর্বদলের বৈঠক ডেকে করোনা সংক্রমণ আটকাতে বেশ কিছু বিড়ি নিষেধ আরোপ করেন অধ্যক্ষ বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়।

জানানো হয় অধিবেশনের আগে, বিধায়ক বিধানসভা কর্মী এবং সাংবাদিকদের অ্যান্টিজেন টেস্ট করা হবে। কক্ষে দুই বিধায়কের মাঝে ৩ফুট জায়গা রাখার কথা বলা হয়েছে। ৬ জনের আসনে ৩জন, পাঁচজনের আসনে দুজন এই পদ্ধতিতে বসার ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

বাম পরিষদের নেতা সুজন চক্রবর্তীর বক্তব্য, ছয় মাস পর অধিবেশন বসছে। ইতিমধ্যে করোনা আম্ফান বেকারত্বের মতো বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ সমস্যা সামনে এসেছে।

মানুষের স্বার্থে এইসব বিষয়গুলি নিয়ে বিধানসভায় আলোচনা জরুরী। অথচ সরকার সেখান থেকে মুখ ঘুরিয়ে নিচ্ছে। গোটা বিষয়টি মুখ্যমন্ত্রীর নজরে আনতে চাইছে বাম এবং কংগ্রেস পরিষদীয় দল।

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।