নয়াদিল্লি: অভিজ্ঞ লিয়েন্ডার পেজকে রেখেই ডেভিস কাপ কোয়ালিফায়ারে ক্রোয়েশিয়ার বিরুদ্ধে স্কোয়াড ঘোষণা করল দেশের টেনিস অ্যাসোসিয়েশন। রোহন বোপান্নার ডাবলস পার্টনার হিসেবে স্কোয়াডে কিংবদন্তিকে রেখেছে এআইটিএ। অতিরিক্ত হিসেবে রাখা হয়েছে দ্বিবিজ শরনকে।

ক্রোয়েশিয়ার বিরুদ্ধে কোয়ালিফায়ার টাইয়ে পাঁচ সদস্যের ভারতীয় স্কোয়াডে রয়েছেন সুমিত নাগাল, প্রজনেশ গুনেশ্বরন, রামকুমার রামানাথন। সিঙ্গলস প্লেয়ার হিসেবে স্কোয়াডে রয়েছেন তিনজন। পক্ষান্তরে ডাবলসে জুটি বাঁধছেন লিয়েন্ডার পেজ ও রোহন বোপান্না। উল্লেখ্য, আগামী ৬-৭ মার্চ জাগরেবের হার্ড কোর্টে শীর্ষ বাছাই ক্রোয়েশিয়ার বিরুদ্ধে ডেভিস কাপ কোয়ালিফায়ারে মুখোমুখি হবে ভারত। নন-প্লেয়িং ক্যাপ্টেন রোহিত রাজপালের সঙ্গে আলোচনা করেই শরনকে ষষ্ঠ সদস্য হিসেবে বেছে নেওয়া হয়েছে।

এআইটিএ’র তরফে এক বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, ‘আন্তর্জাতিক টেনিস ফেডারেশনের কাছে আমরা আমাদের চূড়ান্ত দল পাঠিয়ে দিয়েছি। রিজার্ভ কে হবেন সে বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে অধিনায়ক রোহিত রাজপাল প্রত্যেক প্লেয়ারের সঙ্গেই আলোচনা করেছেন। দ্বিবিজের সঙ্গেও কথা হয়েছে তাঁর। সবরকম আলোচনার পরই ষষ্ঠ সদস্য হিসেবে দ্বিবিজকে বেছে নেওয়া হয়েছে।’

প্রসঙ্গত, পাকিস্তানের সঙ্গে কোয়ালিফায়ারের শেষ টাইয়ে ভারতীয় স্কোয়াডে চোটের কারণে ছিলেন না রোহন বোপান্না। ওই সময় সাত পাকে বাঁধা পড়ার কারণে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে দ্বিবিজকেও পায়নি দল। কাজাখস্তানে নিরপেক্ষ ভেন্যুতে ডাবলসে পেজের সঙ্গী হয়েছিলেন জীবন নেদুনচেজনিয়া।

উল্লেখ্য, চলতি মরশুমের শেষেই টেনিস কোর্টকে বিদায় জানাবেন লিয়েন্ডার। তার আগে সম্প্রতি মহারাষ্ট্রে টাটা ওপেনে দ্বিবিজকে পরাজিত করেছেন তিনি। বেঙ্গালুরু ওপেন চ্যালেঞ্জারের ফাইনালেও পৌছেছেন কিংবদন্তি। তাই লিয়েন্ডার ভালো ফর্মে আছে বলেই মনে করেন নন-প্লেয়িং ক্যাপ্টেন রোহিত রাজপাল।

এর আগে ক্রোয়েশিয়ার বিরুদ্ধে ডেভিস কাপে মাত্র একবারই ক্রোয়েশিয়ার মুখোমুখি হয়েছে ভারত। ১৯৯৫ নয়াদিল্লিতে ৩-২ ব্যবধানে ক্রোয়েশিয়াকে হারিয়েছিল ভারতীয় দল। সিঙ্গলসের পাশাপাশি মহেশ ভূপতির সঙ্গে ডাবলসে জুটি বেঁধেও দলকে জয় এনে দিয়েছিলেন লিয়েন্ডার।