কলকাতা : সিএবি সভাপতি হওয়ার কী জ্বালা টের পেলেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়৷ বাংলার সিনিয়র ক্রিকেটার লক্ষ্মীরতন শুল্কা কেন হঠাৎ অবসর নিলেন? কেন সাইরাজ বাহুতুলে বাংলা ক্রিকেটের শেষ কথা বলেন? ওয়ার্কিং কমিটিতে এই রকম বিভিন্ন প্রশ্নে খোঁচা খেতে হল মহারাজকে৷ স্পনসর নিয়েও আলোচনা হল এই সভায় ৷তবে আলোচ্যসূচিতে এই লক্ষ্মী ইস্যু না থাকলেও তা নিয়ে বেশি শোরগোল হয়েছে ওয়ার্কিং কমিটির সভায়৷

লক্ষ্মীর অবসর প্রসঙ্গে সৌরভ সভায় নাকি বলেন, ‘ আমাকে যখন লক্ষ্মী  অবসর নেওয়ার কথা বলেছিলেন, তখন ওকে বিরত থাকার জন্য অনুরোধ করি৷ এটা ওর একেবারে ব্যক্তিগত সিদ্ধান্ত৷’ তবে অনেক সিনিয়র সিএবি-র সদস্য মনে করছেন প্রশাসক হিসেবে সৌরভ বেশি তাড়াহুড়ো করে ফেলছেন৷ তাই সিদ্ধান্তগুলো তেমন সঠিক হচ্ছে না৷ অভিজ্ঞতার অভাব বলেই তারা মনে করছেন৷ তাই সৌরভের ‘ডালমিয়া’হতে অনেক পথ পেরতে হবে মনে করছেন তারা৷