স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা : মাত্রাতিরিক্ত আর্দ্রতাই নাজেহাল করে ছাড়ছে কলকাতাবাসীকে। একে বৃষ্টি নেই, তার উপর মেঘে ঢাকা গুমোট আকাশ। সকালে খানিক হাওয়া দিচ্ছে। তারপরেই গুমোট আবহাওয়া গ্রাস করছে সমগ্র কলকাতাকে। খানিক বৃষ্টির আশা জাগাচ্ছে। কিন্তু দিনের শেষে লাভের ঘড়া শূন্য। হাওয়া অফিস জানাচ্ছে আজ বৃহস্পতিবার দিনভর শহরকে ভোগাবে অর্দ্রতাজনিত অস্বস্তিকর গরম।

বৃহস্পতিবার সকালে তাপমাত্রা সর্বনিম্ন ২৭.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা স্বাভাবিক। বুধবার বিকেলে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩৩.৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা স্বাভাবিকের থেকে এক ডিগ্রি বেশি ছিল। বৃহস্পতিবার বাতাসে আপেক্ষিক আদ্রতার পরিমাণ ৭০ থেকে ৯৪ শতাংশ। গত ২৪ ঘণ্টায় বৃষ্টি হয় ০.৪ মিলিমিটার। দমদমে ৬.৩ মিলিমিটার বৃষ্টি হলেও সল্টলেকে বৃষ্টি হয়নি।

কলকাতায় বুধবার সকালে তাপমাত্রা ছিল সর্বনিম্ন ২৮.৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা স্বাভাবিকের থেকে এক ডিগ্রি বেশি ছিল। মঙ্গলবার বিকেলে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩৪.০ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা স্বাভাবিকের থেকে এক ডিগ্রি বেশি। বাতাসে আপেক্ষিক আদ্রতার পরিমাণ ছিল ৬৯ থেকে ৯৪ শতাংশ। গত ২৪ ঘণ্টায় বৃষ্টি হয়নি। দমদমে , সল্টলেক কোথাও বৃষ্টি হয়নি।

মঙ্গলবার সকালে তাপমাত্রা ছিল সর্বনিম্ন ২৭.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা স্বাভাবিকের থেকে এক ডিগ্রি বেশি ছিল। সোমবার বিকেলে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩৩.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা স্বাভাবিকের থেকে এক ডিগ্রি বেশি ছিল। বাতাসে আপেক্ষিক আদ্রতার পরিমাণ ছিল ৭২ থেকে ৯৫ শতাংশ। বৃষ্টি হয় ৩.৩ মিলিমিটার। দমদমে ০.৮, সল্টলেকে ১০.৪ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে। সেই বৃষ্টি পুরোপুরি উধাও হয়েছে শহর থেকে।

সোমবার সকালে শহরের তাপমাত্রা ছিল সর্বনিম্ন ২৭.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা স্বাভাবিকের থেকে এক ডিগ্রি বেশি। রবিবার সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩৩.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা স্বাভাবিকের থেকে এক ডিগ্রি বেশি। বাতাসে আপেক্ষিক আদ্রতার পরিমাণ ছিল ৬৯ থেকে ৯৪ শতাংশ। বৃষ্টি হয় ছিটেফোঁটা। সবমিলিয়ে টানা তিন দিন এমনই অস্বস্তিকর আবহাওয়ার জারি রইল শহরে।

দক্ষিনবঙ্গের বিভিন্ন জেলায় নিম্নচাপের ঠেলার অভাব রয়েছে। ফলে বৃষ্টি নেই। সঙ্গী অতিরিক্ত আদ্রতা। বৃহস্পতিবারও এমন আবহাওয়াই থাকবে। শুক্রবারেও এমন পরিস্থিতি জারি থাকতে পারে দক্ষিনবঙ্গের জেলাগুলিতেও। মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টি হলেও আদ্রর্তাজনিত কারণে থাকবে অস্বস্তি৷ বাতাসে জলীয় বাষ্প বেশি থাকায় এই আর্দ্রতাজনিত অস্বস্তি চরমে উঠতে পারে।

এদিকে ফের নিম্নচাপ তৈরির সম্ভাবনা রয়েছে, উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরে। বৃহস্পতিবার এই নিম্নচাপ তৈরীর প্রবল সম্ভাবনা বলে জানাচ্ছেন আবহাওয়াবিদরা। কিন্তু তা দক্ষিণবঙ্গে তেমন প্রভাব ফেলবে না বলে অভিমত আবহাওয়াবিদদের।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও