কলকাতা:  সকাল থেকে আকাশ মেঘলা। সকাল ৭ টার পরেও কলকাতার আকাশে সূর্যের দেখা নেই। উলটে কালো মেঘ ঘনিয়ে এসেছে তিলোত্তমা নগরীর মাথায়। যে কোনও মুহূর্তে ঝেঁপে আসতে পারে বৃষ্টি। বিহার এবং পূর্ব উত্তর প্রদেশের ওপর অবস্থিত ঘূর্ণাবর্তের জেরেই বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাস দেওয়া হয়।

একেবারে বজ্রবিদ্যুৎ সহ ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস দেওয়া হয়েছে। সেই মতো আজ সোমবার সকাল থেকেই আকাশের মুখ ভার। যদিও এখনও বৃষ্টি না হলেও আপাতত এখনই মিলছে না স্বস্তি। হাওয়া অফিস জানাচ্ছে, আগামী ৪৮ ঘন্টায় কলকাতায় বৃষ্টি হতে পারে। এই পরিস্থিতি আগামী শুক্রবার পর্যন্ত চলবে বলেই হাওয়া অফিসের পূর্বাভাস।

পূর্বাভাস বলছে সোমবার উত্তরবঙ্গের ২ দিনাজপুর ও মালদহ এবং দক্ষিণবঙ্গের বীরভূমে বেশ বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। মঙ্গলবারের পর সেখানে আকাশ পরিষ্কার হওয়ার সম্ভাবনা। বুধবারের পর থেকে বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে কলকাতা ও লাগোয়া এলাকায়। শুক্রবার পর্যন্ত চলতে পারে বৃষ্টি। তবে আশঙ্কার কথা এই যে আবহাওয়াবিদদের মতে, যা পরিস্থিতি তাতে চলতি সপ্তাহে শেষেই মরশুমের প্রথম কালবৈশাখি আঘাত হানতে পারে দক্ষিণবঙ্গে। সেক্ষেত্রে পশ্চিমের জেলাগুলিতে ঘণ্টায় ৫০ কিলোমিটার বেগে বইতে পারে হাওয়া। কালবৈশাখির সঙ্গে শিলাবৃষ্টির সম্ভাবনাও রয়েছে পশ্চিমের জেলাগুলিতে।

আবহাওয়াবিদরা জানাচ্ছেন, বিহার ও ঝাড়খণ্ড লাগোয়া অঞ্চলে একটি ঘূর্ণাবর্ত তৈরি হতে পারে। এর জেরে প্রচুর জ্বলিয় বাষ্প প্রবেশ করতে পারে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের জেলাগুলিতে। এর জেরে হতে পারে বৃষ্টি। পার্বত্য অঞ্চলেও বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। এর মধ্যে ২৪ তারিখ হলুদ সতর্কতা দিয়েছে হাওয়া অফিস। কারণ ওইদিন ঝড়ো হাওয়াও বইতে পারে।