লন্ডন: বিশ্বকাপে পরিণত নেতা বিরাট! এর আগে দেশের জার্সিতে দু’টি বিশ্বকাপ খেললেও প্রথম বিশ্বক্রিকেটের এই মেগা ইভেন্টে ভারতীয় দলকে নেতৃত্ব দিচ্ছেন বিরাট কোহলি৷ মাঠে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে বিরাট আগ্রাসন দেখেছে ক্রিকেটবিশ্ব৷ কিন্তু রবিবার কেনিংটন ওভালে উলটো ছবি দেখা গেল৷ প্রাক্তন অজি অধিনায়ক স্টিভ স্মিথকে ভারতীয় সমর্থকের ‘চিটার’ মন্তব্যে এগিয়ে এলেন বিরাট৷ সমর্থকদের এ হেন মন্তব্য না-করতে বলার পাশাপাশি তাদের জন্য স্মিথের কাছে ক্ষমা চেয়ে নেন ভারত অধিনায়ক৷

অজিদের বিরুদ্ধে মাঠে নামলে এতদিন ‘ভিলেন’ হিসেবে দেখা যেত বিরাটকে৷ কিন্তু রবিবার স্পোর্টসম্যানশিপের পরিচয় দিয়ে ভারতীয় সমর্থকদের শান্ত থাকার পরামর্শ দিলেন ক্যাপ্টেন কোহলি৷ ঘটনাটি ঘটেছিল ভারতীয় ইনিংসের ৪৬তম ওভারে৷ হার্দিক পাণ্ডিয়া আউট হওয়ার সময় থার্ডম্যানে ফিল্ডিং করছিলেন স্মিথ। সেই সময় ভারতীয় সমর্থকরা প্রাক্তন অজি অধিনায়কের উদেশ্যে চিটার চিটার…বলে রব তোলেন। কিন্তু এতে রেগে যান বিরাট৷ গ্যালারির দিকে কিছুটা এগিয়ে গিয়ে ভারতীয় সমর্থকদের দিয়ে তাকিয়ে বিরাট এরূপ মন্তব্য না-করার জন্য বলেন ভারত অধিনায়ক৷ উলটে ভারতীয় ফ্যানেদের হাততালি দেওয়ার জন্য বলেন কোহলি৷ এর পরই দ্রুত এসে বিরাটের পিঠ চাপড়ে অভিবাদন জানান স্মিথ৷

বিশ্বকাপের শুরু থেকেই প্রাক্তন অজি অধিনায়কের উদেশ্যে গ্যালারি থেকে কুরুচিকর মন্তব্য উড়ে আসে৷ ইংল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়া ওয়ার্ম-আপ ম্যাচেও স্মিথকে চিটার বলে কটুক্তি করেন ব্রিটিশ সমর্থকরা৷ গত বছর কেপটাউন টেস্টে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে বল বকৃতি কাণ্ডে এক বছরের নির্বাসন কাটিয়ে বিশ্বকাপের ঠিক আগে অস্ট্রেলিয়া দলে ফিরেছেন স্মিথ ও ডেভিড ওয়ার্নার৷

স্মিথের প্রতি সমর্থকদের এ হেন আচরণ সমর্থনযোগ্য নয় বলে মন্তব্য করে বিরাট বলেন, ‘ঘটনাটি অনেক আগের৷ তার পর নির্বাসন কাটিয়ে মাঠে ফিরে দেশের জার্সিতে ভালো খেলার চেষ্টা করছে৷ আইপিএলেও আমি সমর্থকদের এই মন্তব্য করতে শুনেছি৷ অতীতেও এমনটা হয়েছে৷ কিন্তু এটা কোনওভাবেই সমর্থন করা যায় না৷ এদিন গ্যালারিতে অনেক ভারতীয় সমর্থক ছিল৷ আমি চাই না ওরা কোনও খারাপ দৃষ্টান্ত স্থাপন করুক৷ আমিও ওই জায়গায় থাকলে আমার সঙ্গে একই ঘটনা ঘটত৷ সুতরাং ভারতীয় সমর্থকদের হয়ে স্মিথের কাছে আমি ক্ষমা চাইছি৷’ বিরাটের এই স্পোর্টসম্যানশিপ আচরণকে সমর্থন করেছে ক্রিকেটদুনিয়া৷

রবিবার ওভালে অস্ট্রেলিয়াকে ৩৬ রানে হারিয়ে বিশ্বকাপে টানা দু’টি ম্যাচে জয় পেয়েছে কোহলির ভারত৷ শিখর ধাওয়ান ও বিরাটের ব্যাটে প্রথমে ব্যাটিং করে ৩৫৩ রান তুলেছিল ভারত৷ রান তাড়া করতে গিয়ে ৩১৬ রানে থেমে যায় অজি ইনিংস৷ ধাওয়ারের দুরন্ত সেঞ্চুরি(১১৭) এবং কোহলি ৮২ রান করেন৷ অজি ইনিংসে সর্বোচ্চ ৬৯ রান করেন স্মিথ৷