অ্যাডিলেড: একেবারে জিভ বেড়িয়ে পড়েছে৷ কঠোর পরিশ্রমের পর জিভ বেড়িয়ে পড়াটাই তো স্বাভাবিক৷

ক্রিকেট ট্রেনিং ভাবলে ভুল করবেন৷ এই পরিশ্রম ফিটনেসের শিখরে থাকার৷ হ্যাঁ,অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে
মাঠে নামার আগে কঠোর জিম সেশনে ব্যস্ত বিরাটরা৷

ফিটনেস নিয়ে সদা সচেতন কোহলি সেই ফিটনেস ট্রেনিংয়ের ছবি নিজের টুইটারে পোস্ট করেছেন৷ কোহলি মানেই এক্সট্রা কসরত৷ফিটনেস ফ্রিক নামেও দুর্নাম রয়েছে কোহলি’র৷ শৃঙ্খলা মেনে শরীরের চর্চাকে সাধনার জায়গায় নিয়ে গিয়েছেন বিরাট৷ সেই সঙ্গে দলের মধ্যেও ফিটনেস সংস্কৃতির আমদানি করেছেন৷ অর্থাৎ আগে ফিটনেস পরে প্রথম একাদশে সুযোগ৷ ফিটনেস পরীক্ষায় পাশ করলে তবে শিঁকে ছিড়বে দলে৷

আরও পড়ুন- বিতর্ক সরিয়ে ইস্টবেঙ্গলের পেশাদারিত্বের তারিফ বাজাজের গলায়

শুধু বিরাটেরই নয়, অ্যাডিলেড টেস্টে নামার আগে এদিন সার্কিট ট্রেনিং করলেন ভারতীয় ক্রিকেটাররা৷ বিরাটের সঙ্গে জিমে ঘাম ঝরালেন ঋষভ পন্ত, বুমরাহ, পার্থিবরা৷ ঘাম ঝড়িয়ে ক্লান্ত হয়ে পড়ার সেই ছবিই পোস্ট করেছেন বিরাট, যা নেটিজেনের মুঠোফোনে এখন ভাইরাল৷ ছবি পোস্ট করে আসলে তরুণদের অনুপ্রেরণা জোগাতে চেয়েছেন কোহলি৷ সাধনা থাকলে তবেই তো সিদ্ধিলাভ হয়৷ আর সেজন্যই দরকার পরিশ্রম৷ ঘাম ঝরানোর ছবি পোস্ট করে এই বার্তাই দিতে চেয়েছেন ভারত অধিনায়ক৷

বরাবারই শরীরকে সম্পদ মানেন ভিকে৷ অর্থ্যাৎ শরীর হ্যাঁয় তো সবকুছ হ্যাঁয়৷ সেজন্য নিয়মিত ব্যায়াম,দৌড়ের মাধ্যমে শরীরকে ফিট রাখতে হবে, তবেই অন্যের চেয়ে এক কদম এগিয়ে যাবেন আপনি৷ এটাই কোহলির ‘বিরাট’ মন্ত্র৷ অজিদের বিরুদ্ধে সিরিজ শুরুর আগে সতীর্থদের নিয়ে সেই মন্ত্রই ঝালিয়ে নিতে দেখা গেল কোহলিকে৷

আরও পড়ুন- বিরাট ঝড়ের আগে শান্ত কোহলি

অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ভারতের প্রথম টেস্ট শুরু ৬ ডিসেম্বর থেকে৷ শেষবার ২০১৪ সালে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে চার টেস্টের আট ইনিংসে কোহলির সংগ্রহ ছিল ৬৯২রান৷ আট ইনিংসে সংগ্রহ ছিল চারটি শতরান৷ সিরিজের মাঝে সেবার ধোনি নেতৃত্ব থেকে সরে দাঁড়ানোয় কোহলির হাতে কাপ্তানের ব্যাটন এসে পড়েছিল৷  ক্যাপ্টেন হিসেবে এবার প্রথম অস্ট্রেলিয়া সফরে কোহলি৷ এখনও পর্যন্ত অস্ট্রেলিয়ায় কোনও টেস্ট সিরিজ জেতেনি ভারত৷ তাই বিরাটের ব্যাটে রান, আর ডনের দেশে টেস্ট সিরিজ জয়ের স্বপ্ন দেখা শুরু ভারতীয়দের৷

আরও পড়ুন- চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ ষোলোয় VAR-এর চোখে ধরা পড়বে সব