কর্কট: আজকের পুরো সময় ভালো কাটবে। কোনো কাজ করে মানসিক শান্তি পেতে পারেন। পুরনো বন্ধুর সঙ্গে যোগাযোগের মাধ্যমে আবার বন্ধুত্ব শক্তিশালী হবে। কর্মস্থলে নিজের কাজ যত্নসহকারে করলে সহকর্মীদের প্রশংসা পাবেন।

মেষ: পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে ভালো সময় কাটাতে পারবেন। বাড়িতে অতিথিযোগ রয়েছে। মানসিক চাপ কিছুটা হলেও দূর হবে। দূরে ভ্রমণ করার সুযোগ আসবে। সময়ের সঠিক ব্যবহার করুন।

বৃষ: পেশাদারদের আয় বৃদ্ধি পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। নতুন অর্থাগমের পথ খুলে যাবে। সন্তানদের লেখাপড়ায় ভালো খবর আসবে। নতুন কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়ার ব্যাপারে তাড়াহুড়া করবেন না।

মিথুন: নতুন কাজের যোগাযোগ আসবে। অর্থ ভাগ্য ভালো যাবে। ব্যবসায় কোনো জটিলতা থাকবে না। আর্থিক উপার্জনের কোনো নতুন সুযোগ হঠাৎ করেই আসতে পারে। মানসিক হতাশা ও উদ্বেগ দূরে রাখবেন।

সিংহ: কোনো শুভ কাজে অংশগ্রহণ করলে সুনাম বাড়বে। আর্থিক আয় বাড়লেও ব্যয় নিয়ে মানসিক চাপ থাকবে। অযথা উৎকণ্ঠা আসতে পারে। অন্যের কাজ করতে গিয়ে নিজের কাজে ব্যাঘাত ঘটবে। গোপন প্রেমের সম্পর্ক থেকে সাবধান থাকবেন।

তুলা: কাজের পরিবেশ ভালো থাকবে। কোনো গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত গ্রহণ করতে হতে পারে। ব্যবসায়ীরা অল্প পরিশ্রমেই ভালো ফল পাবেন। মা-বাবার সঙ্গে বিতর্ক এড়িয়ে চলুন।

আরো পোস্ট- বিয়ের পর সঙ্গীর সঙ্গে সবথেকে বেশি প্রতারণা করা হয় এই দেশে!

কন্যা: দৈনন্দিন কাজকর্মে সাফল্য আসবে। বাড়িতে প্রত্যাশা পূরণে বাধাবিঘ্ন দূর হবে। কর্মক্ষেত্র পূর্বের তুলনায় ভালো হবে। প্রিয়জনকে নিয়ে আনন্দে সময় কাটাতে পারবেন।

বৃশ্চিক: বিদেশে অবস্থানরত কোনো আত্মীয় বা বন্ধুর সঙ্গে যোগাযোগ হবে বিকেলের দিকে। থেমে থাকা কাজের উন্নতি হবে। পারিবারিক জীবন ভালো যাবে। কর্মক্ষেত্রে দায়িত্ব বেড়ে যাবে।

মকর: অবিবাহিতদের বিয়ের কথাবার্তা এগোতে পারে। কর্ম ও আর্থিক ক্ষেত্র পূর্বের তুলনায় অনেকটা লাভজনক হবে। দুপুরের পর থেকে আনন্দে থাকবেন।

ধনু: কিছুটা আর্থিক চাপ আসতে পারে বাড়ির কারুর শারীরিক অসুস্থতার জন্যে। উদ্বেগের মধ্যে কোনো ভালো সুযোগ লাভ হবে। কারো অসুস্থতায় চিন্তিত থাকতে পারেন।

মীন:কাজে স্বীকৃতি পাবেন। বন্ধুসান্নিধ্যে সময় ভালো কাটবে। মানসিক আনন্দ বাড়বে। সন্তানের জন্য ভাবনা কমবে। আর্থিক উন্নতির যোগ আছে। বিনোদনমূলক কাজে আনন্দ পাবেন।

কুম্ভ: কর্মপ্রার্থীদের আকস্মিক কাজের যোগ ঘটবে। নিজের শত্রুদের থেকে দূরে থাকবেন।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.