কিছুদিন আগেও পশ্চিমের শিক্ষিতরা এটাই বিশ্বাস করতেন যে যোগ আবিষ্কৃত হয় ৫০০ খ্রীষ্টপুর্বাব্দে যখন বৌদ্ধ ধর্মের সূত্রপাত হয়। যদিও, হরপ্পা ও মহেঞ্জোদড়োর সর্বশেষ খনন কার্যের ফলে যে সব নিদর্শন পাওয়া গেছে তাতে যোগের বিভিন্ন ভঙ্গিমার ছবিও আছে। এর থেকেই বোঝা যায় যে খ্রীষ্টের জন্মের ৫০০০ বছর আগেও যোগাভ্যাসের প্রচলন ছিল। যদিও, এই বক্তব্যের লিখিত কোন প্রমাণ পাওয়া যায় না।

মনে রাখতে হবে যোগাভ্যাস কিন্তু একটি নিয়মিত অভ্যাস। দুই দিন করে ছেড়ে দিলে হবে না, নিয়মিত অভ্যাসের মাধ্যমেই এর সুফল পাওয়া সম্ভব। যোগাসন সম্পূর্ণ বিজ্ঞানভিত্তিক ও ব্যায়াম থেকে পৃথক এবং চল্লিশোর্ধ্ব বয়সের পুরুষ ও মহিলাদের পক্ষে সর্বোৎকৃষ্ট। সুতরাং প্রত্যেক মানুষের পক্ষে যোগাসনই একান্ত বাঞ্ছিত কল্পতরু।

আজ ২১ জুন তারিখটি হল আন্তর্জাতিক যোগ দিবস। এই দিনটিকে যোগ দিবস বা বিশ্ব যোগ দিবস বলা হয়। যোগ হল প্রাচীন ভারতে উদ্ভূত এক বিশেষ ধরনের শারীরিক ও মানসিক ব্যায়াম এবং আধ্যাত্মিক অনুশীলন প্রথা। এর উদ্দেশ্য মানুষের শারীরিক ও মানসিক সুস্থতাবিধান। এই প্রথা ভারতে আজও প্রচলিত আছে।

২০১৪ সালের ২৭ সেপ্টেম্বর রাষ্ট্রসংঘে ভাষণ দেওয়ার সময় ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ২১ জুন তারিখটিকে আন্তর্জাতিক যোগ দিবস বলে ঘোষণা করার প্রস্তাব দেন। সেই বছরই ১১ ডিসেম্বর রাষ্ট্রসংঘ রাষ্ট্রসংঘ সাধারণ পরিষদ ২১ জুন তারিখটিকে আন্তর্জাতিক যোগ দিবস বলে ঘোষণা করেন।

এদিকে কোভিড–১৯ মহামারির ফলে যে হতাশা ও উদ্বেগের সৃষ্টি হয়েছে তার থেকে মুক্তির উপায় হিসাবে যোগাসনের গুরুত্ব অনেক। এ বছরের আন্তর্জাতিক যোগ দিবস উপলক্ষ্যে রাষ্ট্রপুঞ্জ ভারতের স্থায়ী এই মিশনকে শরীরচর্চা, শ্বাস–প্রশ্বাস ও প্রাণায়ামের অভ্যাসকে বিশেষ ‘‌যোগ মডিউল’‌–এ পরিণত করতে চলেছে।

কোভিড-১৯-এর নিষেধাজ্ঞা ও সামাজিক দুরত্বের কারণে এ বছর ষষ্ঠ আন্তর্জাতিক যোগ দিবস ভার্চুয়ালি পালন করা হবে বলে জানানো হয়েছে কেন্দ্র সরকারের পক্ষ থেকে। রাষ্ট্রপুঞ্জের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে যে বিশ্বজুড়ে যখন কোভিড-১৯ মানুষের জীবনে বিপর্যয় ও হতাশা ডেকে আনছে সেই সময় রাষ্ট্রপুঞ্জ ভারতের স্থায়ী মিশনকে পালন করবে ১৯ জুন আন্তর্জাতিক যোগ দিবসে। যোগের গুরুত্বকে সামনে রেখে এই মিশনটি যোগা গুরু ও যোগ বিশেষজ্ঞদের নিয়ে বিশেষ যোগ মডিউলের সৃষ্টি করা হবে। এমনিতেই যোগ দিবসের এ বছরের থিম ‘স্বাস্থ্যের জন্য যোগা ও বাড়িতে বসে যোগা’‌।

প্রশ্ন অনেক-এর বিশেষ পর্ব 'দশভূজা'য় মুখোমুখি ঝুলন গোস্বামী।