স্টাফ রিপোর্টার, জলপাইগুড়ি: জেলা শাসকের দফতরে বিক্ষোভ শুরু করল কামতাপুরী আন্দোলনের নির্যাতিত কমিটির সদস্যরা৷ তাঁদের অভিযোগ বার বার জেলা প্রশাসনের কাছে অর্থাৎ পুলিশ সুপার ও জেলা শাসক দফতরে তাদের দাবি জানিয়েও কোনও সুরাহা হয়নি।

কমিটির পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে বিগত বামফ্রন্ট সরকার ও বর্তমান তৃণমূল সরকার বিভিন্ন ভাবে মিথ্যে মামলা দিয়েছেন। বর্তমানে আন্দোলনকারীরা স্বাভাবিক জীবনে ফিরে এসেছেন। তার পরেও একাধিক মামলার জেরে বার বার আদালতে দৌড়াতে হচ্ছে তাদের। মামলা চালানোর জন্য আর্থিক সমস্যায় পড়েছেন তারা। অন্য দিকে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে এসেও তারা কোন ভাবেই কাজ কর্ম করতে পারছেন না বলে অভিযোগ।

এই সব সমস্যা নিয়ে জেলা প্রশাসনের কাছে গেলেও, সমাধান মেলেনি৷ বাধ্য হয়ে মুখ্যমন্ত্রীর সাথে দেখা করে তাদের দাবি আদায়ের জন্য আন্দোলনে নামল প্রাক্তন কেএলও লিঙ্কম্যানরা। এদিন শহরের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে মিছিল করে জেলা শাসক দফতরে হাজির হয় আন্দোলনকারীরা।

তাদের দাবিগুলির মধ্যে তুলে ধরা হয়েছে স্বর্নিভরতা বা স্থায়ী কাজ, রাষ্ট্রদ্রোহীতা এবং বিভিন্ন মামলাগুলি প্রত্যাহার, মুখ্যমন্ত্রীর সাথে সাক্ষাৎ৷ এই আন্দোলনে সামিল হয়েছে জেলার একাধিক ব্লকের প্রায় সাড়ে তিনশো যুবক।
কমিটির সভাপতি জ্যোতিষ রায় বলেন, “আজ আন্দোলনে নেমেছি। যতক্ষন না আমাদের দাবির সঠিক ও লিখিত উত্তর পাব, ততক্ষন আমাদের অবস্থান বিক্ষোভ চালিয়ে যাব।” এদিকে জেলা প্রশাসন সুত্রে জানা গিয়েছে এই দাবিগুলি বিবেচনা করে দেখা হবে৷