আবুধাবি: আইপিএল ফের সাক্ষী থাকল সুপার ওভারে৷ ম্যাচের মতো সুপার ওভারেও বল হাতে দুরন্ত লকি ফার্গুসন৷ মাত্র ২ রান দিয়ে সানরাইর্জাসের ২টি উইকেট তুলে নেন তিনি৷ ফলে সুপার ওভারে ৩ রান করে ম্যাচ জিতে নেয় কেকেআর৷ প্রথম ম্যাচে এবং সুপার ওভারে দুরন্ত বোলিং করে ম্যাচের সেরা পুরস্কার জিতে নিলেন ফার্গুসন৷ তাঁর হাত ধরেই ফের জয়ে ফিরল কেকেআর৷

এই জয়ের ফলে ৯ ম্যাচে ১০ পয়েন্ট নিয়ে প্লে-অফের দৌড়ে টিকে রইল কলকাতা নাইট রাইডার্স৷ পয়েন্ট টেবলে নাইটদের অবস্থান চার নম্বরে৷ আর সমসংখ্যক ম্যাচে মাত্র ৬ পয়েন্ট নিয়ে পাঁচ নম্বরে রয়েছে সানরাইজার্স হায়দরাবাদ৷ প্রথম লেগের পর দ্বিতীয় লেগেও কেকেআর-এর কাছে হারল সানরাইজার্স৷

প্রথম লেগে কলকাতা নাইট রাইডার্সের বিরুদ্ধে প্রথম ব্যাটিং করে হেরেছিল সানরাইজার্স হায়দরাবাদ৷ তাই রবিবার শেখ জায়েদ স্টেডিয়ামে টস জিতে প্রথমে নাইটদের ব্যাটিংয়ের আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন সানরাইজার্স অধিনায়ক ডেভিড ওয়ার্নার৷

নাইটদের বিরুদ্ধে ১৬৪ রান তাড়া করতে নেমে দারুণ শুরু করে দুই ওপেনার জনি বেয়ারস্টো ও কেন উইলিয়ামসন৷ টুর্নামেন্টে প্রথমবার ওপেন করতে নেমে সফল উইলিয়ামসন৷ ওপেনিং জুটিতে ৬.১ ওভারে ৫৮ রান তোলে সানরাইজার্স৷ টুর্নামেন্টে প্রথমবার সুযোগ পাওয়া লকি ফার্গুসন নাইটদের প্রথম ব্রেক-থ্রু দেন৷ ১৯ বলে ২৯ রান করে ফার্গুসনের বলে ডাগ-আউটে ফেরেন উইলিয়ামসন৷

নিজের দ্বিতীয় ওভারে প্রিয়ম গর্গের উইকেট তুলে নিয়ে নাইটদের ম্যাচে ফেরান ফার্গুসন৷ এর ক্রমশ ভয়ংকর হয়ে ওঠা বেয়ারস্টোকে ফেরান বরুণ চক্রবর্তী৷ ২৮ বলে ৩৬ রান করেন বেয়ারস্টো৷ নিজের তৃতীয় ওভারে ফের একটি তুলে নেন ফার্গুসন৷ ব্যক্তিগত ৬ রানে মনীশ পাণ্ডেকে বোল্ড করেন তিনি৷ প্রথম স্পেলে স্বপ্নের বোলিং করেন নাইটদের এই কিউয়ি অল-রাউন্ডার৷ ৩ ওভারে মাত্র ৮ রান খরচ করে তিনটি উইকেট তুলে নেন ফার্গুসন৷

এরপর হায়দরাবাদ ইনিংসের হাল ধরেন ক্যাপ্টেন ওয়ার্নার৷ নিজেকে ওপেন থেকে সরিয়ে এদিন চার নম্বরে ব্যাটিং করতে নেমে দলকে জিতিয়ে মাঠ ছাড়ার সম্ভাবনা ছিল ওয়ার্নারের৷ কিন্তু শেষ বলে জয়ের জন্য ২ করতে না-পারায় ম্যাচ টাই হয়ে যায়৷ অর্থাৎ ফের সুপার ওভারে গড়াল ম্যাচ৷ ৩৩ বলে ৪৭ রানে অপরাজিত থাকেন সানরাইজার্স ক্যাপ্টেন৷

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।