চণ্ডীগড়: বিজেপিই হরিয়ানায় সরকার গড়ছে, একথা আগেই ঘোষণা করেছেন অমিত শাহ। এবার মুখ্যমন্ত্রী শপথ নেওয়ার কথা ঘোষণা করা হল বিজেপির তরফে। রবিবার দুপুর ২টোয় শপথ নেবেন মনোহর লাল খট্টর। জেজেপির সঙ্গে হাত মিলিয়ে সরকার গঠন করছে বিজেপি।

শুক্রবার সন্ধেয় অমিত শাহের বাড়িতে যান দুষ্মন্ত চৌতালা। সেখানেই দুই দলের ডিল হয় বলে জানা গিয়েছে।

সেই বৈঠক থেকে বেরিয়ে অমিত শাহ সরকার গঠনের কথা ঘোষণা করেন। জানা যে আগামী পাঁচ বছর বিজেপি ও জেজেপিই চালাবে হরিয়ানার সরকার। শনিবার থেকে চণ্ডীগড়ে সেই সরকার গঠনের প্রক্রিয়া শুরু হবে বলে জানিয়েছে মনোহর লাল খট্টর।

জানা গিয়েছে, মুখ্যমন্ত্রী পদ পাবে বিজেপি ও উপমুখ্যমন্ত্রীর পদ দেওয়া হবে জেজেপিকে।

দুষ্মন্ত চৌতালা এদিন অমিত শাহকে ধন্যবাদ দিয়েছেন। জানিয়েছেন, স্থায়ী সরকার গঠন করবেন তাঁরা। হরিয়ানার উন্নয়নের পথে এগিয়ে যাবে বলেও উল্লেখ করেছেন তিনি।

সূত্রের খবর, স্থানীয়দের সরকারি চাকরিতে সংরক্ষণের জন্য জেজেপি যে দাবি জানিয়েচিল, সেটাও মেনে নিয়েছে বিজেপি। বয়স্কদের জন্য পেনশনের ব্যবস্থার কথাও মেনে নেওয়া হয়েছে বলে সূত্রের খবর।

ভোটের ফলাফল প্রকাশের পর থেকে হরিয়ানা নিয়ে জল্পনা তুঙ্গে। বিজেপি বা কংগ্রেস কেউই সংখ্যাগরিষ্ঠতা পায়নি। ফলে, অন্যান্যদের উপর ভরসা করতে হচ্ছে সরকার গঠনের জন্য। জেজেপি কাকে সমর্থন করে, তা এখনও স্পষ্ট হয়নি। তবে, সূত্রের খবর কংগ্রেস-বিজেপি উভয় দল থেকেই ফোন যায় জেজেপি-র কাছে।