নয়াদিল্লি: সংবিধানের ৩৫এ ধারা নিয়ে রায় তিন মাস পিছিয়ে দিল সুপ্রিম কোর্ট৷ আগামী বছর জানুয়ারি মাসে এই ধারা নিয়ে ফের শুনানি হবে শীর্ষ আদালতে৷  অন্যদিকে কেন্দ্রের তরফ থেকে অ্যার্টনি জেনারেল কে কে বেনুগোপা এই ইস্যুতে ছ’মাসের সময় চেয়ে নিয়েছেন৷

এদিন তিন সদস্যের বেঞ্চে সংবিধানের ৩৫এ ধারা নিয়ে একাধিক পিটিশনের শুনানি ছিল৷ কি বলা আছে এই ৩৫এ ধারায়? এই ধারা বলে জম্মু কাশ্মীরকে বিশেষ রাজ্যের মর্যাদা দেওয়া হয়েছে৷ এই ধারার মাধ্যমে রাজ্য ঠিক করে সেখানকার স্থায়ী বাসিন্দা কারা৷ ১৯৫৪ সালে মে মাসে রাষ্ট্রপতির নির্দেশে এই ধারা বলবৎ হয়৷

এই ধারা দেশের মধ্যে বিভেদ তৈরি করছে৷ ৩৫এ ধারা বাতিলের দাবিতে তাই একাধিক পিটিশন দায়ের হয় শীর্ষ আদালতে৷ অন্যদিকে এদিন সুপ্রিম কোর্টের রায় পিটিশনের পক্ষে গেলে কাশ্মীরের বিচ্ছিন্নতাবাদী নেতারা প্রতিবাদ ও আন্দোলনের হুমকি দেয়৷ তাদের দাবি, ষড়যন্ত্র করে জম্মু কাশ্মীরের ৩৫এ ধারা বাতিল করা হচ্ছে৷