নয়াদিল্লি: কারগিল যুদ্ধে শহীদ হয়ে আগেই নামের পাশে জুড়েছে পরমবীর চক্র উপাধি। এবার শহীদ ছেলের নামে রাজধানী শহরে নামকরণ হোক রাস্তার, দিল্লি সরকারের কাছে এমন দাবিই জানিয়েছেন কারগিল যুদ্ধের শহীদ বিক্রম বাত্রার বাবা জি এল বাত্রা। কিন্তু তাঁর এই আবেদনে কোনো সারা মেলেনি সরকারের তরফে, এমনটাও জানিয়েছেন তিনি।

চলতি বছর ২০ তম বর্ষ উদযাপন হয়েছে কারগিল যুদ্ধের। ২০ বছর আগে আজকের দিনেই পাকিস্তানি বাহিনীকে হটিয়ে কারগিলের মাটিতে ভারতের পতাকা গেড়ে দিয়েছিলেন ভারত মাতার বীর সন্তানেরা। পয়েন্ট ৪৮৭৫ সহ বেশ কয়েকটি পর্বত শৃঙ্গ নিজেদের আয়ত্তে আনেন ভারতীয় সেনারা। ভারতীয় সেনার এই কারগিল অভিযান ‘মিশন বিজয়’ নামে পরিচিত।১৯৯৯ সালের ২৬ জুলাই কারগিল জয় করেছিলেন ভারতীয় সেনাবাহিনী। তাই এই দিনটি পরিচিত ‘কারগিল বিজয় দিবস’ নামে। এই যুদ্ধেই শহীদ হয়েছিলেন বিক্রম বাত্রা। তাঁর মৃত্যুর পর তাঁকে মরণোত্তর সম্মান প্রদান করা হয়। দেওয়া হয় পরমবীর চক্র। ভারতের সর্বোচ্চ সামরিক সম্মান এই পরমবীর চক্র। কিন্তু শুধু পরম বীর চক্র নয়, শহীদের বাবা চান ছেলের নামেই নামকরণ করা হোক দিল্লির রাস্তার। এই বিষয়ে ইতিমধ্যেই সরকারের কাছে আবেদনও জানিয়েছেন তিনি।

তিনি বলেন, “পাকিস্তানের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নিয়েছিল ভারত।” এই বক্তব্য শেষ না করেই শহীদ জনক বলেন, এখনও ভারতে অনুপ্রবেশ এবং সন্ত্রাসবাদ চালিয়ে যাচ্ছে পাকিস্তান। তিনি আরও বলেন, সরকারের কাছে তিনি আর্জি জানিয়েছেন, “পরমবীর চক্রের পর দিল্লির রাস্তার নাম তার ছেলের নামে করুক দিল্লি সরকার।”

কিন্তু, তার এই আবেদনের কোন সারা মেলেনি সরকারের তরফে।