স্টাফ রিপোর্টার, বর্ধমান: সমাজে বিষ ছড়াচ্ছে রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেস। প্রকাশ্য জনসভায় দাঁড়িয়ে এমনই মন্তব্য করলেন বিজেপির জাতীয় নেতা জয় বন্দ্যোপাধ্যায়।

বুধবার পূর্ব বর্ধমানের জামালপুর থানার নুড়মোড় সংলগ্ন মাঠে পশ্চিমবঙ্গ জুড়ে গণহত্যার প্রতিবাদে আয়োজিত বিজেপির সভায় হাজির ছিলেন জয়। সেখানেই রাজ্যের শাসক তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে কড়া ভাষায় আক্রমণ করেছেন বিজেপি জাতীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য।

ক্ষমতায় আসার আগে তৃণমূল কংগ্রেস যা সকল প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল তা পূরণ হয়নি বলে দাবি করেছেন জয়। তিনি অভিযোগ করেছেন যে নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যে সোনার বাংলা গড়ার স্বপ্ন দেখিয়েছিলেন তিনি তা গড়তে পারেননি। রাজ্যের মানুষ হতাশায় ভুগছে বলেও দাবি করেছেন জয়।

এরপরেই রাজ্য থেকে তৃনমূল কংগ্রেসকে উৎখাত করার ডাক দেন জয় বন্দ্যোপাধ্যায়। বিজেপির এই জাতীয় নেতা বলেন, “আর কিছুদিন তৃণমূল ক্ষমতায় থাকলে রাজ্যের বায়ুটা বিষাক্ত হয়ে যাবে।” একই সঙ্গে তিনি আরও বলেন, “অনুব্রত মণ্ডলের মতো সবাইকে অক্সিজেনের সিলিন্ডার নিয়ে হাঁটতে হবে।”

এই বিষাক্ত বায়ু দূর করার জন্য অবিলম্বে রাজ্যে বিজেপি-র সরকার গঠন করতে হবে বলে দাবি করেছেন জয়। তাঁর কথায়, “খুব তাড়াতাড়ি এই বিষাক্ত বায়ু তৃণমূলকে সরিয়ে বিজেপির পবিত্র বায়ু রাজ্যে আনতে হবে। তাহলেই বাংলা আবার জগতসভায় শ্রেষ্ঠ আসন পাবে।”

পূর্ব বর্ধমানের ওই সভায় হাজির ছিলেন রাজ্য বিজেপির সভাপতি দিলীপ ঘোষ। বিজেপি রাজ্যে ক্ষমতায় আসলে তিনিই মুখ্যমন্ত্রী বলেও প্রকাশ্য সভায় দাঁড়িয়ে বলেছেন দলের জাতীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য জয় বন্দ্যোপাধ্যায়।