বেজিংঃ  ফের যুদ্ধের ইঙ্গিত! চিনের হুমকির মুখে এবার জাপান।  বেজিংয়ের হুঁশিয়ারি, বিতর্কিত দক্ষিণ চিন সাগরে জাপান যদি সবচেয়ে বড় যুদ্ধজাহাজ পাঠায় তাহলে এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে পাল্টা ব্যবস্থা নেওয়া হবে।  আগামী মে মাসেই হেলিকপ্টার বহনে সক্ষম জাহাজ ইজুমো তিন মাসের অভিযানে বিতর্কিত দক্ষিণ চিন সাগরে যাবে বলে জানানো হয়েছে।  এরপরেই নড়েচড়ে বসেছে চিন।  শুধু গা ছাড়া দিয়ে ওঠা নয়, একেবারে রণং দেহী মেজাজে হুম্মি জাপানকে।

চিনা বিদেশমন্ত্রকের মুখপাত্র হুয়া চুনইং বলেন, গত বছরের তুলনায়ন দক্ষিণ চিন সাগরের পরিস্থিতির উন্নতি হয়েছে।  আঞ্চলিক দেশগুলো প্রচেষ্টায় এটি ঘটছে বলেও জানান তিনি।  এই অঞ্চলের বাইরের দেশগুলোকে দক্ষিণ চিন সাগরের শান্তি ও স্থিতিশীলতা বজায় রাখার তৎপরতার প্রতি সম্মান জানানোর আহ্বানও জানান তিনি।

আগামী মে মাসে হেলিকপ্টারবাহী জাহাজ ইজুমো তিন মাসের অভিযানে দক্ষিণ চিন সাগরে যাবে।  প্রকাশিত খবরে আরও বলা হয়েছিল, ইজুমোর সামরিক সক্ষমতা যাচাই করার জন্য তিন মাসের অভিযানে পাঠানো হচ্ছে।  দক্ষিণ চিন সাগরে মার্কিন নৌবাহিনীর সঙ্গে জাহাজটি প্রশিক্ষণ নেবে।  অবশ্য দক্ষিণ চিন সাগরের যে অংশকে বেজিং তার নিজের এলাকা বলে দাবি করছে সেখানে এটি যাবে কিনা তা পরিষ্কার ভাবে জানা যায় নি।

- Advertisement -