ঢাকা:  সরকার স্বীকার না করলেও বাংলাদেশে ইসলামিক স্টেটের অস্তিত্ব নিয়ে আবার চাঞ্চল্যকর রিপোর্ট দিল আন্তর্জাতিক সংগঠন সাইট ইন্টেলিজেন্স গ্রুপ। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের এই সংস্থার দাবি, সম্প্রতি ঢাকায় দুটি পুঁতে রাখা বোমা উদ্ধার করা হয়। সেটি নাশকতা করানোর জন্যই আইএস রেখেছিল।

গত বুধবার ঢাকা পুলিশের দুটি চেক পয়েন্ট খামারবাড়ি ও পল্টন এলাকা থেকে বোমা দুটি উদ্ধার করে পুলিশ। সাইট ইন্টেলিজেন্স গ্রুপের সেই তথ্যের ভিত্তিতে বিবিসি এই সংবাদ দিয়েছে।

সাইট ইন্টেলিজেন্স গ্রুপ মূলত ইসলামিক স্টেটের কার্যকলাপ ও আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসবাদ সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে বিশ্লেষণ করে। একাধিকার তারা বাংলাদেশে আইএসের অস্তিত্ব নিয়ে তথ্য দিয়েছে। ভয়াবহ গুলশন হোলি আর্টিজান ক্যাফে হামলার পরেও তারা একই কথা জানিয়েছিল। পরে সেই তথ্য নিশ্চিত করা হয়।

এদিকে বোমা পুঁতে রাখার ঘটনায় আইএস জড়িত সেটা প্রাথমিকভাবে মানতে চায়নি ঢাকা মহানগর পুলিশ। বিবিসি সংবাদ দিতেই পড়েছে শোরগোল। বাংলাদেশ পুলিশের জঙ্গি দমন শাখা সিটিটিসি জানাচ্ছে, তথ্য খতিয়ে দেখা হচ্ছে। আইএস যে ধরণের বোমা হামলা চালায় তার সঙ্গে উদ্ধার করা বোমার মিল নেই।

শ্রীলংকায় ইস্টার সানডের দিনে ভয়াবহ ধারাবাহিক বিস্ফোরণের পর বাংলাদেশে হামলার হুমকি দেয় আইএস। তারপরই গত ৩০শে এপ্রিল গুলিস্তানে ও গত ২৬শে মে রাতে মালিবাগে পুলিশের স্পেশাল ব্রাঞ্চ অফিসের সামনে বোমা হামলা হয়। এতে এক মহিলা এএসআই সহ চারজন পুলিশকর্মী এক রিকশা চালক জখম হন। এই হামলার দায় নেয় আইএস।