তেহরান: তারা দর্শক হলে কি আর ফুটবলে ঠিক করে লাথি মারা সম্ভব? লাখ টাকার প্রশ্ন সেটাই। বিশ্বকাপ ফুটবলের বাছাই পর্বের ম্যাচে গ্যালারিতে ঝলক থাকবে ইরানি মহিলাদের। ইসলামি বিপ্লবের পর প্রথমবারের মতো মাঠে বসে খেলা দেখবেন ইরানি মহিলারা।

আরও পড়ুন: একজোড়া জুতো ও একমাত্র টি-শার্টই ছিল ভরসা, লড়াইয়ের স্মৃতিতে নস্ট্যালজিক বুমরাহ

তেহরানের আজাদি স্টেডিয়ামে ২০২২ সালের বিশ্বকাপের বাছাইপর্বে ইরান ও কম্বোডিয়ার মধ্যে খেলায় তৈরি হচ্ছে এই নজির। বিবিসি জানাচ্ছে, খেলা দেখার জন্য মহিলা সিট সংরক্ষিত আসনের সব টিকিট আধ ঘন্টার মধ্যে বিক্রি হয়েছে। সব দেখে ইরানের ক্রীড়া মন্ত্রক জানিয়েছে, ১০ হাজার দর্শক থাকতে পারে এই আজাদি স্টেডিয়ামে। সেখানে আরও মহিলা দর্শক বসার ব্যবস্থা করা হবে।

আরও পড়ুন: ঝিঙ্গানের চোট, প্রস্তুতি ম্যাচে ড্র সুনীলদের

আশির দশকে পহ্লবী রাজবংশের শাসন থেকে মুক্ত হয় ইরান। তৈরি হয় ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরান। তারপর লাগাতার বিশ্ব কূটনীতিতে ঝড় তুলেছে ইরান। এরপর ক্রমাগত এগিয়ে গেলেও, ইরানে মহিলাদের জন্য পুরুষদের ক্রীড়া অনুষ্ঠানের গ্যালারি তে বসা নিষিদ্ধ। সেই আইনটি ভাঙছে বৃহস্পতিবার। বিশ্বকাপ ফুটবলের মূলপর্বে বরাবরই এশিয়ার অন্যতম শক্তি ইরান।