চেন্নাই: করোনা ভাইরাসের জন্য বিশ্বের বিভিন্নপ্রান্তে আটকে পড়েছেন অনেক মানুষ। তিনমাসের মধ্যে বহু মানুষ দেশে ফিরলেও অনেকেই এখনও ফিরছেন। সেরকম ৬৮৭ জনকে দেশে ফেরাল ভারত, এমনটাই জানিয়েছে ভারতীয় নৌবাহিনী।

জানা গিয়েছে, ইরানের বন্দর আব্বাস থেকে ঐ ৬৮৭ জনকে ফিরিয়ে আনা হয়েছে ৬৮৭ জনকে। বুধবার সকালে যা তামিলনাডুর তুতিকোরিন হারবারে এসে পৌঁছেছে।

এ বিষয়ে নিজেদের অফিশিয়াল সোশ্যাল মিডিয়া একাউণ্টে একটি ভিডিও পোস্ট করা হয়েছে ভারতীয় নৌবাহিনীর তরফে। উপসাগরীয় দেশ থেকে ভারতীয়দের ফেরাতে এবার যুদ্ধজাহাজ ব্যবহার করছে ভারতীয় নৌবাহিনী। প্রস্তুত হচ্ছে ১৪টি জাহাজ।

যে সকল ভারতীয়রা দেশে ফিরতে চাইছেন তাঁদের ফেরাতেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। তবে এই অপারেশনে যাতে নৌ বাহিনীর সদস্যরা কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত না হয়ে পরেন সেই দিকে নজর দেওয়া হচ্ছে, তেমনটাই জানিয়েছেন নৌবাহিনীর এক আধিকারিক।

নৌবাহিনীর উপপ্রধান অ্যাডমিরাল জি অশোক জানিয়েছেন, “আমরা ১৪টি জাহাজ তৈরি রেখেছি। চারটি ওয়েস্টার্ন কম্যান্ডে, আরও চারটি ইস্টার্ন ন্যাভাল কম্যান্ডে, বাকি তিনটি দক্ষিণ কম্যান্ডে আর কয়েকটি আন্দামান ও নিকোবর কম্যান্ডে রাখা রয়েছে। তাই বলা যায়, উপসাগরীয় দেশ থেকে ভারতীয়দের উদ্ধারের জন্য বেশ কয়েকটি যুদ্ধজাহাজ প্রস্তুত রয়েছে”।

ইভ্যাকুয়েশন প্ল্যান চূড়ান্ত করতে কাজ করছেন চিফ অফ ডিফেন্স স্টাফ এবং বিদেশমন্ত্রকও যোগদান করতে চলেছে। তবে সম্পূর্ণ প্রস্তুত ভারতীয় নৌবাহিনী।

ভারতীয় বায়ুসেনা এবং এয়ার ইন্ডিয়া এয়ারক্র্যাফটও পাঠানোর ভাবনায় রয়েছে ভারত। যে সকল ভারতীয়রা নৌবাহিনীর সাহায্যে দেশে ফিরতে চাইছেন তাঁদের জন্য ব্যবহার করা হবে এইগুলি। একবারে অনেক মানুষকে আনার জন্য ব্যবহার করা হবে নৌবাহিনীর যুদ্ধজাহাজ। আইএনএস জলস্ব (INS Jalashwa) যা মূলত পণ্য পরিবহনে ব্যবহার হলেও এখন ভারতীয় নৌবাহিনীর সঙ্গে কাজ করছে।

ভারতীয় বায়ুসেনা এবং এয়ার ইন্ডিয়া এয়ারক্র্যাফটও পাঠানোর ভাবনায় রয়েছে ভারত। যে সকল ভারতীয়রা নৌবাহিনীর সাহায্যে দেশে ফিরতে চাইছেন তাঁদের জন্য ব্যবহার করা হবে এইগুলি। একসঙ্গে অনেক মানুষকে দেশে ফেরাতে ব্যবহার করা হবে নৌবাহিনীর যুদ্ধজাহাজ।

Proshno Onek II First Episode II Kolorob TV