নয়াদিল্লি: প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী পি চিদম্বরম ও তাঁর ছেলে কার্তি চিদম্বরমকে ইন্দ্রানী মুখোপাধ্যায় ৫ মিলিয়ন দলার ঘুষ দিয়েছিলেন বলে জানিয়েছেন। শুক্রবার সিবিআইয়ের দেওয়া চার্জশিটে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

শুক্রবার কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার করফে দিল্লির নিম্ন আদালতে এই চার্জশিট দাখিল করা হয়েছে, যেখানে প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর পাশাপাশি আরও ১৪ জনকে আইএনএক্স মিডিয়া মামলায় অভিযুক্ত হিসেবে তুলে ধরা হয়েছে৷ ইন্দ্রাণীকে সেখানে ‘রাজসাক্ষী’ হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে।

সূত্রের খবর, তাৎপর্যপূর্ণ ভাবে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার তরফে পেশ করা এই চার্জশিটে বেশ কয়েক জন শীর্ষ স্থানীয় কেন্দ্রীয় সরকারি আমলার বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছে সিবিআই। তাঁদের মধ্যে আছেন নীতি আয়োগের প্রাক্তন সিইও সিন্ধুশ্রী খুল্লার এবং ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পোদ্যোগ মন্ত্রকের প্রাক্তন সচিব অনুপ পূজারি৷ এ দিন সুপ্রিম কোর্টে চিদম্বরমের জামিনের আবেদনের শুনানি হয়, যেখানে প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর জামিনের আবেদনের তীব্র বিরোধিতা করে সিবিআই৷

কেন্দ্রীয় মন্ত্রীকে গ্রেফতারের দু’মাসের মধ্যেই চার্জশিট পেশ করার পরে এদিন সিবিআইয়ের তরফে চিদম্বরমের জামিনের আবেদনের তীব্র বিরোধিতা করা হয়৷ সুপ্রিম কোর্টে দায়ের করা এই জামিনের মামলার শুনানিতে সিবিআইয়ের তরফে সওয়াল করতে গিয়ে সলিসিটর জেনারেল তুষার মেহতা বলেন, ‘চার্জশিট পেশ করার পরে আইএনএক্স মামলার তদন্ত এখন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ জায়গায় রয়েছে৷’

আইএনএক্স মিডিয়ার প্রতিষ্ঠাতা ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায়ের অভিযোগের ভিত্তিতেই চিদম্বরম ও তাঁর ছেলে কার্তির বিরুদ্ধে দুর্নীতির মামলা করেছে সিবিআই ও ইডি। ইন্দ্রাণী ও তাঁর স্বামী পিটার দু’জনেই ইন্দ্রাণীর মেয়ে শিনা বোরার হত্যা মামলায় জেলে রয়েছেন।