জাকার্তা: কাজে যেতে গিয়ে রাস্তার ট্রাফিক জ্যামে কে না বিরক্ত হন। সবারই তখন মনে হয়, যদি এই রাস্তা ছেড়ে আকাশপথে উ়ড়ে গন্তব্যে পৌঁছে যাওয়া যেত, তবে কী ভালটাই না হত। কিন্তু আমরা মনে মনে ভাবি, কেউ সে চেষ্টাও করি না। কিন্তু ইন্দোনেশিয়ার এই ব্যক্তি সেই চেষ্টাই করলেন। সফলও হলেন। নিজের জন্য বানিয়ে ফেললেন আস্ত এক হেলিকপ্টার!

গল্প না সবটাই সত্যি। বছর বিয়াল্লিশের জুজুন জুনেইদি রাজধানী শহর জাকার্তা থেকে দক্ষিণে প্রায় ১১০ কিলোমিটার দূরে বসবাস করেন। প্রতিদিন কাজে যাওয়ার সময় ট্রাফিক জ্যামে বিরক্ত হয়ে নিজের জন্য একটি হেলিকপ্টার বানানোর চিন্তা করেন। যেমন ভাবা তেমন কাজ। প্রায় দেড় বছর আগে শুরু হয় তাঁর হেলিকপ্টার তৈরির এই অভিনব মিশন।

অবসর সময়ে বাড়ির পিছনের খোলা জমিতে শুরু করেন হেলিকপ্টার তৈরির কাজ। ইন্টারনেটে ভিডিয়ো দেখে দেখে বানাতে শুরু করেন হেলিকপ্টারের খুঁটিনাটি। জুজুনের সঙ্গে যোগ দেন তাঁর ছোট ছেলে এবং এক প্রতিবেশীও। তিন জন মিলে ১৮ মাসে বানিয়ে ফেলেন একটি ২৬ ফুট লম্বা হেলিকপ্টার। এই হেলিকপ্টারের জ্বালানি হিসাবে ব্যবহার করা হয়েছে একটি পেট্রোল ইঞ্জিন। যদিও হেলিকপ্টারটি এখনও পরীক্ষামূলক উড়ান শুরু করেনি। তবে জুজুন আশাবাদী তাঁর আকাশে ওড়ার স্বপ্ন খুব শীঘ্রই পূরণ হবে।

এই স্বপ্নের হেলিকপ্টার তৈরি করতে জুজুন এখনও পর্যন্ত খরচ করেছেন ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় দেড় লক্ষ টাকা। জুজুনের এই হেলিকপ্টার তৈরির কাহিনী এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল। ইতিমধ্যেই বেশ কিছু ছবি ও ভিডিয়ো ছড়িয়ে পড়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।