নয়াদিল্লি: গত সাত দিন ধরে প্রতিদিনের হিসেবে ভারতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা পার করে ফেলেছে ব্রাজিল, আমেরিকাকেও! বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার বিচারে এই দুটি দেশই করোনায় সর্বাধিক ক্ষতিগ্রস্থ। হু-এর নিরিখে ভারত রয়েছে করোনা তালিকায় তৃতীয় স্থানে।

কিন্তু এই মাসের ৪ তারিখ থেকে ১০ তারিখের মধ্যে (অগস্ট মাসে) ভারতে সংক্রমণ বেড়েছে লাগাম ছাড়া। এমনকি তা পার করে ফেলেছে আমেরিকা, ব্রাজিলকেও। এই সাতদিনে সারা বিশ্বে যত সংখ্যক মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন, তাঁর মধ্যে ২৩ শতাংশ ভারতে ও মোট মৃতদের মধ্যে ১৫ শতাংশ মৃত্যুও হয়েছে ভারতেই।

ওই ৭ দিনে ভারতে মোট করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৪ লক্ষ ১১ হাজার ৩৭৯ জন, মোট মৃত্যু হয়েছে ৬,২৫১ জনের। আমেরিকায় এই ৭ দিনে মোট আক্রান্ত হয়েছেন ৩ লক্ষ ৬৯ হাজার ৫৭৫ জন, মৃত্যু হয়েছে ৭২৩২ জন।

এই সাতদিনে ব্রাজিলে আক্রান্ত হয়েছেন ৩ লক্ষ ৪ হাজার ৫৩৫ জন ও মৃত্যু হয়েছে ৬৯১৪ জন।

কেন্দ্রের পরিসংখ্যান বলছে এদেশে প্রথম ১ লক্ষ করোনা রোগী ধরা পড়ে ১১০ দিনে। এরপরে ৫৯ দিনে সেই সংখ্যা পৌঁছায় ১০ লক্ষে। এরপর বিদ্যুৎগতিতে ছড়াতে থাকে সংক্রমণ। মাত্র ২৪ দিনেই ১০ লক্ষ থেকে ২২ লক্ষে চলে যায় করোনা সংক্রমণ।

এদেশে প্রথম করোনা সংক্রমণ ধরা পড়ে ৩০ জানুয়ারি কেরলে। এরপর লকডাউন থেকে কড়া লকডাউন করেও দমানো যায়নি করোনা।

হু-এর পরিসংখ্যান বলছে ১০ অগস্ট ভারতে আক্রান্ত হয়েছেন ৬২ হাজার ৬৪ জন, আমেরিকায় সেখানে আক্রান্ত হয়েছেন ৫৩ হাজারের একটু বেশি ও ব্রাজিলে ওই দিন আক্রান্ত হয়েছেন ৪৯ হাজার ৯৭০ জন। অর্থাৎ ভারতে লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে করোনা। এর শেষ কোথায়, সেই উত্তরই খুঁজছে দেশবাসী।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও