সৌপ্তিক বন্দ্যোপাধ্যায়: পাবজি খেলেও আপনি জিততে পারেন ১ কোটি টাকা পুরস্কার। মোবাইল স্ট্র্যাটেজি গেম ‘পাবজি ইন্ডিয়া’ ২০১৯ সালের টুর্নামেন্টের জন্য এমন বিশাল অঙ্কের পুরস্কার অর্থ ঘোষণা করেছে।

কিন্তু তামাম ক্রিকেট দুনিয়ার ধনী ক্রিকেট বোর্ডগুলির মধ্যে অন্যতম অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট বোর্ড সদ্য সমাপ্ত ওয়ান ডে সিরিজে জয়ীদের জন্য কোনও পুরস্কারের অর্থই রাখেনি। তাহলে কী করা উচিৎ ছিল বিরাট কোহলি-ধোনিদের?

অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে ওয়ান ডে সিরিজ জয়ের পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান শেষ। একটি ক্রিকেট সংক্রান্ত টক শো’তে সুনীল গাভাস্কর রীতিমত তুলোধোনা করলেন অজি ক্রিকেট বোর্ডকে। তিনি জয়ী দলের জন্য কোনও আর্থিক পুরস্কার নেই দেখে অত্যন্ত অবাক হয়েছেন। তাঁর দাবি, “অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট বোর্ড টেলিভিশন সত্ব বিক্রি করে বহু অর্থ উপার্জন করে। জয়ী দলকে পুরস্কারের জন্য অর্থ দেওয়া উচিৎ ছিল।”

তিনি মনে করেন এই ক্রিকেটারদের জন্যই তো ক্রিকেট বোর্ড বিশাল অঙ্কের টাকা পাচ্ছে, তাহলে সেখান থেকে ক্রিকেটারদের কিছু দেওয়া যেতেই পারত বলে তিনি মনে করেন। কিংবদন্তি গাভাস্করের কথা অনুযায়ী বলা যেতে পারে অস্ট্রেলিয়া একদিনের সিরিজ না খেলে ভারতীয় দল মোবাইলে পাবজি খেললেও পারতেন। সেখানে জিতলেই তো দলের অ্যাকাউন্টে আসতে পারত কোটি টাকা।

খেলার জন্য অর্থ, কিন্তু মোটা টাকার জন্য ভারতের হয়ে খেলার স্বপ্ন দেখেন কি ক্রিকেটাররা ? তাহলে হয়তো চেতেশ্বর পূজারা খেলা ছেড়েই দিতে পারতেন। খেলা ছেড়ে দিতে পারতেন ওয়াসিম জাফরের মতো ক্রিকেটার। খেলার জন্য এঁদের কোথাও না কোথাও একটু হলেও ভালোবাসা লুকিয়ে রয়েছে। কিন্তু এসব ইমোশন ছেড়ে যদি সানির চোখ দিয়ে দেখা হয় তাহলে দেখা যাবে খুব একটা ভুল কথা কিন্তু তিনি বলেননি। অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেটের টেলিভিশন সত্ব মানে তা চ্যানেল নাইনের হাতে। কিন্তু ২০১৮-তেই চল্লিশ বছর পর সেই সম্পর্কে চিড় ধরেছে। এই প্রথম চ্যানেল নাইন অজি ক্রিকেট গ্রীষ্মের কোনও ম্যাচের সত্ব পায়নি। তা গিয়েছে ফক্স স্পোর্ট, সেভেনের হাতে। তাঁদের সঙ্গে ৬ বছরের জন্য ৭১ কোটি ২৩ লক্ষ টাকার চুক্তি করেছে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। সেখান থেকে কিছু অন্তত পেতেই পারত জয়ী দল।

অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে প্রথম টেস্ট সিরিজ জয়ের ইতিহাসের জন্য বিসিসিআই প্রথম একাদশের ক্রিকেটারদের জন্য ম্যাচ পিছু ১৫ লক্ষ টাকা করে এবং রিজার্ভ বেঞ্চে যারা রয়েছেন তাঁরা পাবেন ৭.৫ লক্ষ টাকা কর দেবে বলে ঘোষণা করে দিয়েছে। কোচেদের প্রাপ্তি ২৫ লক্ষ টাকা৷ সেখানে ওয়ান ডে সিরিড জিতে আয়োজকদের কাছ থেকে কোন অর্থ মূল্য পেল না বিরাট অ্যান্ড কোং৷