নয়াদিল্লি: সীমান্তে ভারতীয় সেনার দৃষ্টি আরও প্রখর করতে এবার লং রেঞ্জের ‘নাইট সাইট’ তুলে দেওয়া হবে হচ্ছে সেনাবাহিনীর হাতে। অন্তত ১৫০০০ উচ্চ ক্ষমতাসম্পন্ন এই যন্ত্র তাদের হাতে তুলে দেওয়া হবে। অন্তত ১২০০০ মিটার দূরে থাকা শত্রুপক্ষের ট্যাংকও দেখা যাবে এতে।

এই যন্ত্রের ওজন হবে ১.৬ কেজি। ৬০ ডিগ্রি হরাইজন্টার ও ৪০ ডিগ্রি ভার্টিক্যাল ভিউ দেখা যাবে এতে। গত ৯ মে ভারতীয় সেনাবাহিনী পাকিস্তানি সেনা ঘাঁটিকে টার্গেট করার জন্য ৮৪ মিলিমিটারের রকেট লঞ্চারে ব্যবহার করেছে। ভারতীয় সেনার কাছে ১৯৭৪ থেকে রয়েছে কার্ল-গুস্তফ সিস্টেম। এগুলির অত্যাধুনিক ভার্সান তৈরি করছে ভারতের অর্ডিন্যান্স ফ্যাক্টরি। যে কোনও পরিস্থিতিতে

৮৪ মিলিমিটার রকেট লঞ্চার হল একটি অ্যান্টি-ট্যাংক অস্ত্র, যা প্রত্যেক প্লাতুনে রয়েছে। এটি ৫০০ থেকে ৮০০ মিটারের মধ্যে কার্যকরী হয়। যেহেতু নতুন ট্যাংকগুলিতে রাতে যুদ্ধ করার জন্য বিশেষ ব্যবস্থা রয়েছে তাই এই নয়া যন্ত্রের বিশেষ প্রয়োজন রয়েছে ভারতীয় সেনার। ভারতেই তৈরি হবে এগুলি। চলতি বছরের নভেম্বরেই টেন্ডার ইস্যু করা হবে।

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।