শ্রীনগর: সাত সকালেই ফের এনকাউন্টার কাশ্মীরে। বড়সড় সাফল্য পেল সেনাবাহিনী।

সেনার গুলিতে খতম কাশ্মীরের একমাত্র আইএস কমান্ডার ইশফাক আহমেদ। এই জঙ্গি আল-কায়েদা কমান্ডার জাকির মুসার ঘনিষ্ঠ বলে জানা গিয়েছে।

শুক্রবার সকালে কাশ্মীরের সোপিয়ানে শুরু হয় সেনা-জঙ্গি গুলির লড়াই। এখনও পর্যন্ত এক জঙ্গির মৃত্যু হয়েছে বলে খবর। ওই মৃত জঙ্গির কাছ থেকে প্রচুর অস্ত্র উদ্ধার করেছে সেনাবাহিনী। আইএসের কমান্ডারকে নিকেশ করা বড় সাফল্য বলেই মনে করছে সেনা।

কয়েকদিন আগেই এই সোপিয়ানে এনকাউন্টারে মৃত্যু হয় তিন জঙ্গির। গত ৩ মে হয় সেই এনকাউন্টার।

এক সেনা অফিসার জানিয়েছেন শুক্রবার সকালে সোপিয়ানের ইমাম সাহিব এলাকায় চলে এই এনকাউন্টার। ওই এলাকায় জঙ্গিরা লুকিয়ে আছে, খবর পেয়েই অভিযান চালায় সেনাবাহিনী।

এই জঙ্গিকে খত করতে পারায় জাকির মুসার কাছে পৌঁছনো সহজ হল বলেই মনে করছে সেনাবাহিনী।

গত বছরের শেষের দিকে জাকির মুসা পঞ্জাবে ঢুকেছে বলে খবর আসে। আল কায়েদার কাশ্মীর ইউনিটের প্রধান মুসাকে ধরতে চেয়ে পঞ্জাবের নানা জায়গায় পোস্টার পড়ে। খবর ছিল, ফিরোজপুর দিয়ে মুসা বেশ কয়েকজন জয়েশ জঙ্গিকে সঙ্গে নিয়ে পঞ্জাবে ঢুকেছে।