ওয়াশিংটন-নয়াদিল্লি:  চিনকে লক্ষ্য করে গড়ে তোলা হচ্ছে ভারতের স্ট্র্যাটেজিক পরমাণু কর্মসূচি। আগে এই কর্মসূচি পাকিস্তানকে লক্ষ্য করে গড়ে তোলা হলেও এখন এর লক্ষ্য হয়ে উঠেছে চিন। সম্প্রতি এমনটাই দাবি করা হয়েছে এক সংবাদমাধ্যমে।

প্রকাশিত সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী, ওয়াশিংটনের ফেডারেশন অব আমেরিকান সায়েন্টিস বা এফএএসের বিশেষজ্ঞ হ্যানস এম. ক্রিসটেনসেন এবং রবার্ট এস নোরিস এক গবেষণার রিপোর্টে এমনটাই জানিয়েছেন। তাতে বলা হয়েছে, ১৯৮৭ সাল থেকে এই দুই গবেষক নিউক্লিয়ার নোটবুক প্রকাশ করছেন। কেউ কেউ বলেন, পরমাণু এবং অস্ত্র সংক্রান্ত বিষয়ে তাদের এসব নোটবুককে সবচেয়ে নির্ভরযোগ্য বলে গণ্য করা হয়।

ভারতীয় পরমাণু বাহিনী সম্পর্কে চলতি মাসে প্রকাশিত প্রতিবেদনে তারা বলেছেন, চিনের সব জায়গায় আঘাত হানার জন্য ভারতের মধ্য ও দক্ষিণাঞ্চলে ঘাঁটি করা হবে দেশীয় প্রযুক্তিতে তৈরি পরবর্তী প্রজন্মের ক্ষেপণাস্ত্র। তাদের হিসাব অনুসারে, ভারতে প্লুটোনিয়াম উৎপাদন যা হয় তা দিয়ে দেড়শ থেকে দুশ পরমাণু বোমা তৈরি সম্ভব। এখনও পর্যন্ত ভারত ১২০ থেকে ১৩০টি পরমাণু বোমা তৈরির কাজ শেষ করেছে। ভারতের পরমাণু উপাদান উৎপাদনের সক্ষমতা নাটকীয়ভাবে বাড়ছে বলেও উল্লেখ করেন তারা।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ