মেলবোর্ন: বক্সিং ডে টেস্টে স্বপ্নের শুুরু ভারতের৷ বুধবার টস জিতে এমসিজি-তে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলির৷ বক্সিং ডে টেস্টের আগের দিনই একাদশ ঘোষণা করে দিয়েছিল ভারতীয় থিঙ্কট্যাঙ্ক৷ প্রত্যাশামতই ময়াঙ্ক আগরওয়াল ও হনুমা বিহারীর নতুন ওপেনিং জুটিতে এমসিজি-তে ইনিংস শুরু করে টিম ইন্ডিয়া৷

টস জিতে টিম ইন্ডিয়ার ক্যাপ্টেন বিরাট কোহলি বলেন, ‘পিচের সার্ফেস আমরা প্রথমে ব্যবহার করতে চাই৷ পিচ শুষ্কতা রয়েছে৷ দেখে মনে হচ্ছে দারুণ পিচ৷ তবে সময়ের সঙ্গে সঙ্গে পিচ স্লো হবে৷ এই টেস্ট ম্যাচকেই সিরিজের শেষ টেস্ট ধরে এগোতে চাই৷ এখানেই আমরা সেরাটা দিতে চাই৷’ এমসিজি-তে এদিন টেস্ট অভিষেক হয়ে ময়াঙ্ক আগরওয়ালের৷

মিচেল স্টার্কের প্রথম ওভার মেডেন দেন ভারতের দুই ওপেনার আগরওয়াল ও বিহারী৷ কিন্তু দ্বিতীয় ওভারের টেস্ট ক্রিকেটে তাঁর খাতা খোলেন ময়াঙ্ক৷ জোস হ্যাজেলউডকে কভারে পুশ করে তিন রান নেন কর্নাটকের ডানহাতি ব্যাটসম্যান৷ সেই সঙ্গে টেস্টে তাঁর প্রথম রান সংগ্রহ করেন ময়াঙ্ক৷ তবে প্রথম রান করতে ২৫ বল নেন ভারতের অন্য ওপেনার বিহারী৷ নবম ওভারে অজি লেগ-স্পিনার নাথান লায়নের ওভারে খাতা খোলেন তিনি৷

প্রথম দু’টি টেস্টে ব্যর্থ ওপেনিং জুটিতে ছেঁটে ফেলে ভারত৷ মঙ্গলবারই অর্থাৎ ম্যাচের আগের দিন ভারত অধিনায়ক জানিয়ে দিয়েছিলেন এমসিজিতে ভারতীয় ইনিংসের সূচনা করবেন ময়াঙ্ক আগরওয়াল ও হনুমা বিহারী৷ মিডল-অর্ডার থেকে থেকে তুলে নিয়ে বক্সিং ডে টেস্টে হায়দরবাদের ডানহাতি ব্যাটসম্যানকে একবারে ওপেনিংয়ে নিয়ে এসেছে কোহলি-শাস্ত্রী জুটি৷ মেলবোর্ন টেস্টের দলে তিনটি পরিবর্তন করে ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্ট৷ দুই ওপেনার রাহুল ও বিজয়ের পরিবর্তে দলে ঢুকেছেন ময়াঙ্ক ও রোহিত শর্মা৷ আর উমেশ যাদবের পরিবর্তে দলে এসেছেন রবীন্দ্র জাদেজা৷ অ্যাডিলেডে প্রথম টেস্ট খেললেও চোটের জন্য পারথে দ্বিতীয় টেস্ট খেলতে পারেননি৷

এর আগে বক্সিং টেস্টে ইতিহাসের সাক্ষী থাকল অজি ক্রিকেট৷ ব্যাগি গ্রিন টুপি পরে কো-ক্যাপ্টেন সাত বছরের আর্শি শিলারকে সঙ্গে নিয়ে টস করতে নামেন অজি অধিনায়ক টিম পেইন৷ পরে দলের সঙ্গে জাতীয় সঙ্গীতে অংশ নেন আর্শি৷

হার্টের সমস্যা নিয়ে সংগ্রাম করা সাত বছরের আর্শি অস্ট্রেলিয়ার হয়ে খেলার স্বপ্ন দেখে৷ এই বয়সে বেশ কয়েকটি অস্ত্রোপচারও হয় তার৷ আর্শির ইচ্ছার কথা জানতে পেরে ভারতের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজের আগেই তার সঙ্গে দেখা করেছিলেন অজি কোচ জার্স্টিন ল্যাঙ্গার৷ তাকে দলে নেওয়ার প্রতিশ্রুতিও দিয়েছিলেন অজি কোচ৷ সেই মত বক্সিং টেস্টের সাত বছরের আর্শিকে কো-ক্যাপ্টেন হিসেবে ১৪ জনের দলে রাখে অস্ট্রেলিয়া৷