নয়াদিল্লি: পাকিস্তান সমঝোতা এক্সপ্রেস বন্ধ করার কথা আগে জানিয়েছিল। এবার সেই ট্রেন বন্ধ করতে চলেছে ভারত।

কাশ্মীরে ৩৭০ ও ৩৫ এ রদ হওয়ার পর থেকেই নতুন করে চিড় ধরেছে ভারত-পাকিস্তান সম্পর্কে। সমঝোতা এক্সপ্রেস বন্ধ রাখবে ভারতও। এমনটাই জানিয়ে দেওয়া হয়েছে। বন্ধ হচ্ছে দিল্লি-আটারি সমঝোতা এক্সপ্রেস।

৩৭০ ধারা প্রত্যাহারের পর একতরফা ভাবে সমঝোতা এক্সপ্রেস, নয়াদিল্লি বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে পাকিস্তান। সম্প্রতি আটারি থেকে দিল্লি ফিরেছে একটি ট্রেন। ৭৬ জন ভারতীয় ও ৪১ জন পাকিস্তানি নাগরিককে নিয়ে রাজ ১.৩০ নাগাদ নয়াদিল্লি পৌঁছেছে ট্রেনটি।

নির্ধারিত সময়ের চেয়ে প্রায় সাড়ে ৪ ঘণ্টা দেরিতে পৌঁছেছে এই ট্রেন। নিরাপত্তার কারণ দেখিয়ে আটারি সীমান্তে আটকে দেওয়া হয় এই ট্রেন।

সম্প্রতি, জম্মু-কাশ্মীরের উপর থেকে ৩৭০ ধারা প্রত্যাহার করে নিয়েছে মোদী সরকার। ভারতের এই রাজ্যের উপর থেকে বিশেষ মর্যাদা বিলোপ করে পরিণত করেছে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে। ভারতের এই সিদ্ধান্তেই ভারতের উপর প্রতিশোধ নিতে মরিয়া পাকিস্তান। ভারতকে প্যাঁচে ফেলতে একগুচ্ছ সিদ্ধান্ত নিয়ে চলেছে পাক সরকার।

পাক সরকারের দাবি, জম্মু-কাশ্মীরের বর্তমান এই অবস্থা সম্পূর্ণরূপে বিতর্কিত। আর তখন থেকেই পাকিস্তান ভারতের সাথে কূটনৈতিক সম্পর্ক হ্রাস করেছে। দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য স্থগিত করেছে। পাকিস্তানে ভারতীয় চলচ্চিত্রের প্রদর্শনী নিষিদ্ধ করেছে। প্রাক্তন নৌ-সেনা কুলভূষণ যাদবকে কনস্যুলার অ্যাক্সেস দেওয়ার প্রতিশ্রুতি ফিরিয়ে নিয়েছে

শুধু সমঝোতা নয়, বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে থর এক্সপ্রেসও।

কলকাতার 'গলি বয়'-এর বিশ্ব জয়ের গল্প