নয়াদিল্লি: গত ২৪ ঘণ্টায় ৬১,৫৩৭ জন নতুন করে করোনা ভাইরাসের থাবায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা ২০,৮৮,৬১১ জন। সুস্থ হয়েছেন ১৪.২৭ লক্ষ মানুষ। টানা চতুর্থদিনের জন্য ভারতে সংক্রমণের সংখ্যা একদিনে সর্বোচ্চ রেকর্ড গড়েছে, এমনটাই তথ্য মিলেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সূত্রে।

শেষ ২৪ ঘণ্টায় ৯৩৩ জন করোনা আক্রান্ত হয়ে প্রাণ হারিয়েছেন। অতিমারীর শুরু থেকে এখনও অবধি ভারতে ৪২ হাজারের বেশি মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ দেখেছে ভারত। ৬২,৫৩৮ নতুন সংক্রমণের খবর পাওয়া গিয়েছে।

বুধবার ৫২,৫০৯ জন নতুন করে আক্রান্ত হয়েছিলেন। পাশাপাশি ৫২,০৫০ জন মঙ্গলবার আক্রান্ত হয়েছেন। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, ব্রাজিল এই দুই দেশে কোভিড সংক্রমণ প্রথম থেকেই বেশি, শেষ চারদিনে এই দুই দেশের তুলনায় সংক্রমণের নিরিখে এগিয়ে রয়েছে ভারত।

দ্বিতীয়দিনের জন্য ভারতে করোনা সংক্রমণ ৬০ হাজার ঘটনা দেখেছে। তবে সাতদিনের বেশি সময় থেকে ৫০ হাজারের বেশি সংক্রমণ দেখছে দেশ।

ভারতের যে দশটি রাজ্য করোনা সংক্রমণে সবচেয়ে বেশি এগিয়ে রয়েছে তাদের মধ্যে রয়েছে মহারাষ্ট্র, তামিলনাডু, অন্ধ্রপ্রদেশ, কর্ণাটক, দলিল্লি, উত্তরপ্রদেশ, পশ্চিমবঙ্গ, তেলেঙ্গানা, বিহার এবং গুজরাত।

শেষ ২৪ ঘণ্টায় পাঁচ রাজ্য থেকে সবচেয়ে বেশি সংক্রমণের খবর এসেছে। মহারাষ্ট্রে মোট সংক্রমণ ১০,৪৮৩ জন। অন্ধ্রপ্রদেশে ১০,১৭১ জন, কর্ণাটকে ৬,৬৭০ জন, তামিলনাডুতে ৫,৮৮০ জন এবং উত্তরপ্রদেশে ৪,৪০৪ জন নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন। শুধু সংক্রমণ নয়, করোনায় মৃত্যুর নিরিখেও এগিয়ে আছে এই রাজ্যগুলি, এমনটাই তথ্য মিলেছে সরকারি সূত্রে।

তবে সংক্রমণ বৃদ্ধির পাশাপাশি বেড়েছে সুস্থতার হার। গতকাল ৬৭.৯৮ শতাংশ থেকে বেড়ে হয়েছে ৬৮.৩২ শতাংশ। পাশাপাশি বিশ্বজুড়ে করোনা সংক্রমিতের সংখ্যা ১.৯৩ কোটি, ৭.২১ লাখ মানুষ এখনও অবধি প্রাণ হারিয়েছেন।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও