নিউইয়র্ক: করোনা নিয়ে চালানো সমীক্ষায় চাঞ্চল্যকর তথ্য দিলেন আমেরিকার ম্যাসাচুসেটস ইনস্টিটিউট অফ টেকনোলজি (এমআইটি)-র গবেষকরা। তাঁদের দাবি, প্রতিষেধক না এলে ২০১২১ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে ভারতে রোজ ২ লক্ষ ৮৪ হাজার মানুষ করোনায় আক্রান্ত হতে পারেন। মার্কিন এই প্রতিষ্ঠানের গবেষকদের সমীক্ষায় চোখ রীতিমতো কপালে ওঠার জোগাড়।

লাগামছাড়া করোনার সংক্রমণ দেশে। প্রতিদিন হাজার-হাজার মানুষ নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হচ্ছেন। এবার করোনা নিয়ে ভারতের জন্য চাঞ্চল্যকর সমীক্ষা রিপোর্ট পেশ আমেরিকার ম্যাসাচুসেটস ইনস্টিটিউট অফ টেকনোলজি বা এমআইটি-র গবেষকদের।

তাঁদের সমীক্ষায় জানানো হয়েছে, কয়েকমাসের মধ্যেই যদি করোনার ভ্যাক্সিন বাজারে না আসে তবে ভারতের ক্ষেত্রে তা ভয়ঙ্কর হতে পারে। গবেষকদের দাবি, ভারতে সংক্রমণ এভাবে বাড়তেই থাকলে বড়সড় বিপদ নেমে আসতে পারে। বিশ্বে সর্বাধিক করোনা সংক্রমিত দেশ হতে পারে ভারত।

এমআইটি-র গবেষকদের সমীক্ষা অনুযায়ী, ২০২১ সালের ফেব্রুয়ারিতে ভারতে রোজ ২ লক্ষ ৮৪ হাজার মানুষ করোনায় আক্রান্ত হতে পারেন। বিশ্বের ৮৪টি দেশের প্রায় ৬০ শতাংশ মানুষের ওপর সমীক্ষা চালিয়েছেন এমআইটি-র গবেষকরা। তাঁদের সমীক্ষা অনুযায়ী, করোনার সংক্রমণ আগামী কয়েকমাসে আরও বাড়তে পারে। ২০২১ সালের মার্চ থেকে মে মাসের মধ্যে গোটা বিশ্বে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ২০ থেকে ৬০ কোটির মধ্যে হতে পারে।

গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে দেশে ২২ হাজার ৭৫২ জন নোভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত হয়ে দেশে মৃত্যু হয়েছে আরও ৪৮২ জনের। গোটা দেশে বুধবার সকাল পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ৭ লক্ষ ৪২ হাজার ৪১৭। দেশে করোনায় মৃত্যু বেড়ে ২০ হাজার ৬৪২।

প্রশ্ন অনেক: তৃতীয় পর্ব