মীরপুর: অন্যতম ফেভারিট হওয়া সত্ত্বেও এমার্জিং টিমস এশিয়া কাপের শেষ চারের হার্ডল থেকে বিদায় নিতে হল তারকা সমৃদ্ধ ভারতের অনূর্ধ্ব-২৩ ক্রিকেট দলকে৷ শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে উত্তেজক সেমিফাইনালে পাকিস্তানের কাছে মাত্র ৩ রানের ব্যবধানে হার মানে ভারত৷

মীরপুরে পাকিস্তান টস জিতে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয়৷ নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ২৬৭ রান তোলে তারা৷ লড়াকু হাফ-সেঞ্চুরি করেন ওপেনার ওমর ইউসুফ৷ অল্পের জন্য অর্ধশতরান হাতছাড়া হয় সঈফ বদরের৷ শিবম মাভি ও সৌরভ দুবের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে উইকেট তোলেন হৃত্ত্বিক শোকিন৷

আরও পড়ুন: গোলাপি বলে দিন-রাতের টেস্ট: জেনে নিন খুঁটি-নাটি

জবাবে ব্যাট করতে নেমে ভারত ৫০ ওভারে ৮ উইকেটের বিনিময়ে ২৬৪ রানে আটকে যায়৷ জয়ের জন্য শেষ ৬ বলে ৮ রান দরকার ছিল ভারতের৷ শেষ ওভারে ৪ রানের বেশি তুলতে পারেনি চিন্ময় সুতার ও সিদ্ধার্থ দেশাইয়ের ব্যাটিং জুটি৷ ব্যর্থ হয় সনভির সিংয়ের অনবদ্য অর্ধশতরান৷ অল্পের জন্য হাফ-সেঞ্চুরি করতে পারেননি ক্যাপ্টেন বিআর শরৎ ও আরমান জাফর৷

পাকিস্তানের হয়ে ওমর ইউসুফ সর্বাধিক ৬৬ রান করেন৷ ৯৭ বলের সতর্ক ইনিংসে তিনি ৩টি চার ও ২টি মারেন৷ সঈফ বদর ৪৮ বলে ৪৭ রান করে অপরাজিত থাকেন৷ এছাড়া হায়দার আলি ৪৩, রোহেল নাজির ৩৫ ও ইমরান রফিক ২৮ রান করেন৷ মাভি, দুবে ও হৃত্ত্বিক ২টি করে উইকেট নেন৷ ১টি উইকেট নিয়েছেন সিদ্ধার্থ দেশাই৷

আরও পড়ুন: ইডেনে দিন-রাতের টেস্ট নিয়ে উল্লেখযোগ্য কিছু তথ্য

ভারতের হয়ে সনভির সিং ৯০ বলে ৭৬ রান করে রান-আউট হন৷ তিনি ৫টি চার ও ১টি ছক্কা মারেন৷ শরৎ আউট হন ৪৩ বলে ৪৭ রান করে৷ তিনি ৬টি চার ও ১টি ছক্কা মারেন৷ এছাড়া আরমান জাফর ৪৬ রানের যোগদান রাখেন৷ বল হাতে ২টি উইকেটও নেন সঈফ৷ তিনিই ম্যাচের সেরা ক্রিকেটার নির্বাচিত হন৷