নয়াদিল্লি: ফের বিস্ফোরক মন্তব্যে শিরোনামে প্রাক্তন পাক তারক অল-রাউন্ডার আব্দুল রজ্জাক। ইংরেজ অল-রাউন্ডার বেন স্টোকসের লেখা একটি বইয়ের সূত্র ধরে ভারতীয় ক্রিকেট দলের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ করে বসলেন রজ্জাক। ২০১৯ বিশ্বকাপ থেকে পাকিস্তানকে ছিটকে দিতেই ইংল্যান্ডের কাছে ইচ্ছে করে হেরেছিল ভারত, সম্প্রতি বেন স্টোকস তাঁর প্রকাশিত একটি বইয়ে এমনটাই দাবি করেছেন বলে অভিযোগ। যদিও তাঁর বইয়ে এমন কোনও ঘটনার উল্লেখ এই বলে দাবি উড়িয়ে দিয়েছেন ইংল্যান্ডের বিশ্বজয়ের নায়ক।

তবে স্টোকস দাবি উড়িয়ে দিলেও অনড় রজ্জাক বলছেন পাকিস্তানকে বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে দিতে ভারত ইংল্যান্ডের কাছে হেরেছিল একথা সত্যি। এমনকি ঘটনায় আইসিসি’র কাছে ভারতের শাস্তিও দাবি করেছেন তিনি। পাকিস্তানের এক টেলিভিশন শো’য়ে রজ্জাক জানিয়েছেন। আমরা টেলিভিশনের উপস্থাপক হিসেবে সকলেই বিষয়টা ধারণা করেছিলাম। আমি আইসিসি’কে অনুরোধও করেছি ম্যাচ ফিক্সিং কিংবা স্পট ফিক্সিংয়ের মতো এই ঘটনার ক্ষেত্রেও যখন একটা অন্য একটা টিমকে টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে দেওয়ার জন্য ইচ্ছে করে ম্যাচ হারে তাহলে জরিমানা বা শাস্তি হওয়া উচিত।

এপ্রসঙ্গে রজ্জাক আর বলেন, ‘যারা আগে ক্রিকেট খেলেছে দেখলে তারা দেখলেই বুঝবেন যখন কোয়ালিটি কোনও বোলার ধারাবাহিকভাবে লাইন-লেংথে বল করতে ভুলে যায়। উইকেট তুলে নেওয়ার পরিবর্তে অনায়াসে যথেচ্ছে রান খরচ করে, তখন দেখলেই বোঝা যায় তারা ইচ্ছা করেই এমনটা করছে। একইভাবে যে ব্যাটসম্যান অনায়াসে চার বা ছক্কা হাঁকাতে পারে, পরিবর্তে সে যদি শুধুই ব্লক করতে থাকে তখন তা সহজেই দৃষ্টি আকর্ষণ করে।’

তাই রজ্জাক বলেছেন, এমন ঘটনা আইসিসি’র আইনের আওতায় আসা উচিত। আইসিসির যেমন ১,২…৫ ধারা রয়েছে, তেমনই কোনও এক ধারার আওতায় রাখা উচিত এমন ঘটনাকে। কোনও দল তাদের যোগ্যতা অনুযায়ী ইচ্ছে করে পারফর্ম না করলে সেই ধারা অনুযায়ী তাদের শাস্তি হওয়া উচিত। উল্লেখ্য, ২০১৯ বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের কাছে ৩১ হারে হেরেছিল কোহলির ভারত। ইংল্যান্ডের ছুঁড়ে দেওয়া ৩৩৮ রানের লক্ষ্যমাত্রা তাড়া করতে নেমে ৫০ ওভারে ৩০৬ রানের বেশি তুলতে পারেনি ভারতীয় দল।

প্রশ্ন অনেক-এর বিশেষ পর্ব 'দশভূজা'য় মুখোমুখি ঝুলন গোস্বামী।