ঢাকা:  আগামী ছয় বছরে ডিপার্টমেন্ট অব অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ রিফর্ম অ্যান্ড পাবলিক গ্রিভেন্সেস (ডিএআর অ্যান্ড পিজি)-এর অধীনে ন্যাশনাল সেন্টার ফর গুড গভর্নেন্সে (এনসিজিজি) বাংলাদেশের ১৮০০ সরকারি আধিকারিককে প্রশিক্ষণ দেবে ভারত। শুক্রবার বাংলাদেশ-ভারত জয়েন্ট কনসালটেটিভ কমিশনের (জেসিসি) পঞ্চম বৈঠকে এই বিষয়ে দু’দেশের মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষর হয়েছে।

বাংলদেশের বিদেশমন্ত্রী একে আবদুল মোমেন এবং ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ বৈঠকে নিজ নিজ দেশের পক্ষে নেতৃত্ব দেন।

সূত্রে জানা গিয়েছে, চুক্তির আওতায় ই-গভর্নেন্স, সার্ভিস ডেলিভারি, পাবলিক পলিসি অ্যান্ড ইমপ্লিমেনটেশন, তথ্য প্রযুক্তি, বিকেন্দ্রীকরণ, নগর উন্নয়ন ও পরিকল্পনা এবং এসডিজি বাস্তবায়নে চ্যালেঞ্জ ও প্রশাসনিক নীতি কৌশল নিয়ে বাংলাদেশের সরকারি আধিকারিকদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। এনসিজিজি-তে বাংলাদেশের সরকারি আধিকারিকদের প্রশিক্ষণে এটি দ্বিতীয় এমওইউ। প্রথম এমওইউ স্বাক্ষর হয় পাঁচ বছর আগে, এর আওতায় ১৫০০ সরকারি আধিকারিকদের প্রশিক্ষণ এরইমধ্যেই শেষ হয়েছে।

অ্যাডিশনাল ডেপুটি কমিশনার/ অ্যাডিশনাল জেলা ম্যাজিস্ট্রেট, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, উপ-পরিচালক স্থানীয় সরকার, সিনিয়র সহকারী সচিব, সিনিয়র সহকারী কমিশনার, সহকারী কমিশনার (ভূমি) এবং মন্ত্রণালয়ের সম-মর্যাদার প্রশাসন ক্যাডারের কর্মকর্তারা এই প্রশিক্ষণের জন্য নির্বাচিত হবেন।