মেলবোর্ন: ভারতের অস্ট্রেলিয়া সফর নিয়ে এখনও অনিশ্চিয়তার কালো মেঘ সরেনি৷ কিন্তু টেস্ট সিরিজের ভেন্যু নিয়ে ভাবনা চিন্তা শুরু করে দিয়েছে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া৷ ভিক্টোরিয়ায় করোনাভাইরাসের প্রকোপের কারণে মেলবোর্ন থেকে সরে পারতে ঐতিহ্যের বক্সিং ডে টেস্ট৷

চলতি বছরের শেষে বিরাট কোহলিদের অস্ট্রেলিয়া সফরে যাওয়ার কথা৷ কোনও অঘটন না-ঘটলে করোনা আবহের পর এটাই হবে ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রথম আন্তর্জাতিক সফর৷ দিন দু’য়েক আগে ভারতের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজ খেলার ব্যাপারে তাঁর উত্তেজনার কথা জানিয়েছিলেন স্টিভ স্মিথ। আর এবার ঘরের মাটিতে ভারত সফরকে ঘিরে তাঁর উন্মাদনার কথা হাবে-ভাবে বুঝিয়ে দিলেন অজি অধিনায়ক টিম পেইন।

দর্শকহীন গ্যালারিতে করোনা পরবর্তী সময় ক্রিকেট-সহ অন্যান্য খেলা আয়োজন করছে বিভিন্ন দেশ। ‘নিউ নর্মাল’ এই বিষয়টিকেই সাদরে গ্রহণ করছেন অনুরাগীরাও। তবে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া এরই মাঝে কিছু সংখ্যক দর্শককে মাঠে প্রবেশের অনুমতি দিতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। তবে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার তরফে দর্শকদের মাঠে ঢোকার অনুমতি পাওয়া না-গেলেও বাইশ গজের ম্যাচের উত্তাপে খুব একটা প্রভাব ফেলবে না বলেই মনে করছেন না টিম পেইন। ম্যাচের আবহে ঢুকে পড়লে তখন আর গ্যালারির কথা মনে থাকে না, জানান অজি অধিনায়ক।

শেষ পর্যন্ত বিরাটদের অস্ট্রেলিয়া সফর হলেও সরতে পারে বক্সিং ডে টেস্টের ভেন্যু৷ ভিক্টোরিয়া প্রদেশে কোভিড-১৯ প্রকোপ সাম্প্রতিক সময়ে মাথাচাড়া দেওয়ায় বক্সিং-ডে টেস্ট মেলবোর্ন থেকে সরে যাওয়ার সম্ভাবনাও তৈরি হয়েছে। অজি ক্যাপ্টেন অবশ্য বক্সিং ডে টেস্টের ভেন্যু নিয়ে বলেন, ‘একজন খেলোয়াাড় হিসেবে আমরা সব সময় চাই দেশের সেরা ভেন্যুতে বেশি দর্শকের সামনে খেলতে৷ বক্সিং ডে টেস্টের দিকে আমরা সবাই তাকিয়ে থাকি৷ এমসিজি-তে খেলাটা দারণ অনুভুতি৷’

অজি অধিনায়ক আরও বলেন, ‘ফিংগার ক্রসড, সব ঠিকঠাক থাকবে৷ তবে আমাদের হাতে কিছু নেই৷ অস্ট্রেলিয়াতে বিশ্বসেরা স্টেডিয়াম রয়েছে৷ অন্যত্র হতে পারে৷’ মনে করা হচ্ছে, মেলবোর্ন থেকে বক্সিং ডে টেস্ট সরতে পারে পারথে৷ ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া চায় পারথের নবনির্মিত ৬০ হাজার দর্শকাসন বিশিষ্ট অপটাস স্টেডিয়ামে হোক বক্সিং ডে টেস্ট৷ কারণ এই মুহূর্তে এমসিজি-র পর এটাই দেশের সেরা স্টেডিয়াম৷

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ