নয়াদিল্লি: মোদী সরকারের দ্বিতীয় ইনিংসের প্রথম বাজেটে মূল চরিত্র হয়ে হাজির হলো – সরাসরি বিদেশি বিনিয়োগ বা ‘ফরেন ডাইরেক্ট ইনভেস্টমেন্ট বা এফডিআই ।’ অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমন শুক্রবার জানিয়েছেন, ১০০ শতাংশ এফডিআই কে মান্যতা দেবে কেন্দ্রীয় সরকার।

নির্মলার আরো বক্তব্য, সরকার সংবাদমাধ্যম, বিমা, কৃষি, এভিয়েশন বা অসামরিক বিমান পরিবহণ, এনিমেশন, অডিও, ভিডিও, গ্রাফিক্স – শিল্প ক্ষেত্রে ১০০ শতাংশ এফডিআই-এর পক্ষে। ২০১৯ সালের পূর্ণাঙ্গ বাজেটে ‘ফরেন পোর্টফোলিও ইনভেস্টর’ দের জন্যও সুখবর দিয়েছে। এফপিএই বিনিয়োগকারীরা ২৪ শতাংশ বিনিয়োগ করতে পারবেন।

বর্তমানে দৈনিক সংবাদপত্র ও পিরিওডিকাল পাবলিশিংয়ে ২৬ শতাংশ সরাসরি বিদেশি বিনিয়োগ করা হতে পারে। ভারতের বিমান পরিবহণের ক্ষেত্রে ৪৯ শতাংশ অনুমতি দেওয়া হয়েছে। তবে ওই শতাংশের সংখ্যাগুলি বাড়াবে, তা সাফ জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী। সিঙ্গেল ব্রান্ড রিটেলেও সরাসরি বিদেশি বিনিয়োগ পাড়বে৷

ভারতকে বিশ্বের অন্যতম সেরা বাজারে পরিণত করতে চায় মোদী সরকার৷ পাঁচ লক্ষ কোটি মার্কিন ডলারের অর্থ ব্যবস্থার দিকে এগোতে চায় ভারত৷ সেই লক্ষেই, দেশের বাজার অর্থনীতিকে বিশ্বের দরবারে শীর্ষে তুলতে ‘বিশ্ব বিনিয়োগ সম্মেলন’ আয়োজন করবে ভারত৷ জানিয়েছেন নির্মলা৷

প্রশ্ন অনেক: দ্বিতীয় পর্ব