তিরুঅনন্তপুরম: ছাত্রদের গোমাংস খাওয়ানোর অভিযোগ উঠল কলেজের প্রিন্সিপ্যালের বিরুদ্ধে। কোচিনের ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল উত্তরপ্রদেশের ছাত্র শনিবার জেলাশাসকের কাছে এবিষয়ে অভিযোগ দায়ের করেন। তাঁদের অভিযোগ, না জানিয়ে ছাত্রদের গরুর মাংসের কাটলেট খাওয়ানো হয়েছে। ওই ছাত্ররা এবিভিপির সক্রিয় কর্মী বলে জানা গিয়েছে।

অন্যদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ সুনীল কুমার জানান, কলেজ কর্তৃপক্ষ এর জন্য দায়ি নয়। কলেজের তরফ থেকে কোনও খাবার দেওয়া হয়নি। তিনি বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ে একটি সেমিনার চলছিল। বাইরের একটি সংস্থাকে খাবার সরবরাহের দ্বায়িত্ব দেওয়া হয়েছিল।’

কারণ ২২ জানুয়ারি বিশ্ববিদ্যালয় চত্ত্বরে ছাত্ররা সরস্বতী পুজোর আয়োজন করেছিল। ছাত্রদের কথানুযায়ী, বিশ্ববিদ্যালয়ে পুজো করাতে আপত্তি তুলেছিলেন অধ্যক্ষ। যদিও এবিভিপির অবরোধের কারণে ছাত্ররা ক্লাস বয়কট করেছিল সেদিন। অন্যদিকে অধ্যক্ষ জানান, সরস্বতী পুজো নিয়ে কোনও আপত্তি না থাকলেও ছাত্রদের ক্লাস বয়কট নিয়ে তাঁর প্রবল আপত্তি ছিল।

অভিযোগকারী এক পড়ুয়া বলেছেন, এভাবে ধর্মীয় ভাবাবেগে আঘাত লাগায় অনেকেই ভেঙে পড়েছে। লজ্জায় তাঁরা পরিবারকে সব ঘটনা জানাতেও পারেননি। জেলাশাসকের কাছে লেখা চিঠিতে ওই পড়ুয়ারা আরও অভিযোগ করেছেন যে, অধ্যক্ষ তাঁদের সরস্বতী পুজো করতে বাধা দেন। ওই দিন কেরলে বনধ ডাকা হয়েছিল।