স্টাফ রিপোর্টার, বাঁকুড়া: বালি খাদানের ঝামেলাকে কেন্দ্র করে পুলিশ-জনতা খণ্ডযুদ্ধ বাঁধল বাঁকুড়ার পাত্রসায়র থানা এলাকার পাঁচপাড়া এলাকায়। স্থানীয় সূত্রে খবর, সম্পূর্ণ অবৈধভাবে এক শ্রেণীর বালি মাফিয়ারা স্থানীয় দামোদর থেকে প্রায়শই বালি পাচার করছে বলে অভিযোগ।

জানা গিয়েছে, এলাকার মানুষ নিজেদের যাতায়াতের সুবিধার্থে একটি বাঁধ দিয়েছিলেন। মঙ্গলবার সকালে বালি মাফিয়ারা ওই বাঁধটি জেসিবি দিয়ে ভাঙতে গেলে লাঠি,ঝাঁটা নিয়ে গ্রামবাসীরা তাতে বাধা দেন। সেই প্রতিরোধের মুখে পড়ে সেই মুহূর্তে তারা ফিরে যেতে বাধ্য হয়। এই পরিস্থিতিতে খবর পেয়ে গ্রামে পুলিশ এলে উত্তেজনা চরমে পৌঁছয়। এরপরেই পুলিশ-জনতা খণ্ড যুদ্ধের পরিস্থিতি তৈরি হয় বলে খবর পাওয়া গিয়েছে।

এক গ্রামবাসী ওই বালি খাদানটি ‘অবৈধ’ দাবি করে বলেন, গ্রামের কচি কাঁচাদের স্কুল যাওয়ার সুবিধার কথা ভেবে ওই বাঁধটি তৈরি করা হয়েছিল। কিন্তু রাতের অন্ধকারে বালি পাচারকারীরা ওই বাঁধটি এদিন ভাঙ্গতে এলে আমরা বাধা দিই। তারপর তারা ফিরে যেতে বাধ্য হয় বলে তিনি জানান। সুভাষ ঘোষ নামে আর এক গ্রামবাসী বলেন, ওই নদী বাঁধ জেসিবি দিয়ে ভাঙতে এলে আমরা বাধা দিয়েছি। বালি খাদ নিয়ে অভিযোগের চেয়ে বড় অভিযোগ বালি খাদির রাস্তা নিয়ে বলে তিনি জানিয়েছেন। এলাকায় উত্তেজনা থাকায় বিশাল পুলিশ বাহিনী এলাকায় টহল দিচ্ছে।

এই বিষয়ে বিষ্ণুপুরের এসডিপিও প্রিয়ব্রত বক্সী বলেন, ওই এলাকায় একটি বালি খাদান রয়েছে। গ্রামবাসীদের আপত্তিতে বর্তমানে তা বন্ধ রয়েছে। সামান্য উত্তেজনাকর পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল। এবিষয়ে গ্রামবাসীদের সঙ্গে আলোচনায় বসা হবে বলে তিনি জানান।