ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খোলাই হোক বা ইনকাম ট্যাক্স রিটার্ন, বর্তমানে যে কোনও ক্ষেত্রেই PAN কার্ড থাকাই জরুরি। যে কোনও বড় লেনদেনে ক্ষেত্রেও এখন PAN কার্ড খোলা হয়।

ইনকাম ট্যাক্সের 139A ধারা অনুযায়ী, PAN কার্ড থাকা আবশ্যক। বিশেষত যাদের আয় ট্যাক্সের আওতায় পড়ে, তাদের পার্মামেন্ট অ্যাকাউন্ট নম্বর থাকা বাধ্যতামূলক।

তবে এই ইনকাম ট্যাক্স আইনেই রয়েছে আরও দুটি বিকল্পের কথা। অর্থাৎ যাদের PAN কার্ড করা হয়নি অথবা PAN নম্বর কাছে নেই, তারা এই বিকল্প দুটি ব্যবহার করতে পারবে।

১. যেহেতু আধার কার্ডের সঙ্গে প্যান কার্ড লিংক করার প্রক্রিয়া চালু হয়ে গিয়েছে, তাই প্যানের বদলে আধার নম্বর দেওয়া যেতে পারে। যদি লিংক করা হয়ে গিয়ে থাকে, তাহলে প্যানের বদলে ওই নম্বর দিলেও কোনও অসুবিনা নেই।

এছাড়া যদি প্যান কার্ড না থাকে, সেক্ষেত্রেও প্যানের বদলে আধার নম্বর দেওয়া যেতে পারে। এরকমটা হলে ইনকাম ট্যাক্স বিভাগ আপনাআপনি একটি আধারের সঙ্গে লিংক করা প্যান নম্বর জেনারেট করে দেবে।

রেভিনিউ সেক্রেটারি অজয় ভূষণ সম্প্রতি জানিয়েছেন, ব্যাংক ও অন্যান্য প্রতিষ্ঠান আপগ্রেড করছে, যাতে সব জায়গায় আধারের গ্রহণযোগ্যতা থাকে। অর্থাৎ ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খোলার ক্ষেত্রে বা ৫০,০০০ টাকার উপর লেনদেন করার ক্ষেত্রে প্যানের জায়গায় অনায়াসে দেওয়া যেতে পারে আধার।

২. রয়েছে আরও একটি বিকল্প। যাদের প্যান কার্ড নেই, তারা Form 60 ফিল আপ করতে পারে। ওই ফর্মের অর্থ হল, এটা জানিয়ে দেওয়া যে আপনার প্যান কার্ড নেই এবং আপনার আয় ট্যাক্সের অধীন নয়।

তবে যদি প্যান কার্ড না থাকে, শুধুমাত্র সেক্ষেত্রেই এই ফর্ম ব্যবহার করা যেতে পারে অন্যথায় ১০,০০০ টাকা পর্যন্ত জরিমানা হতে পারে। আর যদি প্যান কার্ডের আবেদন করা হয়ে গিয়ে থাকে, কিন্তু আপনার হাতে পৌঁছয়নি, সেক্ষেত্রে আবেদনের অ্যাকনলেজমেন্ট নম্বর দিতে হবে।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

জীবে প্রেম কি আদৌ থাকছে? কথা বলবেন বন্যপ্রাণ বিশেষজ্ঞ অর্ক সরকার I।