ফাইল ছবি

স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: আমি ইনকাম করব অন্য জায়গা থেকে, কিন্তু তা বাটোয়ারা করে দেব গরিবদের মধ্যে। ২১ জুলাই ভার্চুয়াল সভায় এমনই মন্তব্য করলেন তৃণমূল সুপ্রিমো তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

এদিন রাজ্যবাসীর উদ্দেশ্যে বড় ঘোষণা করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি বলেন, “আমি আগেই বলেছি ২১ জুন পর্যন্ত বাংলার গরিবরা বিনামূল্যে রেশনের চাল গম পাবেন। আজ বলছি, আমাদের সরকার থাকলে শুধু ২১ জন নয়, সারাজীবন ফ্রিতে রেশন পাবেন, শিক্ষা পাবেন, স্বাস্থ্য পরিষেবা পাবেন।”

মমতা বলেন, “আমি ইনকাম করব অন্য জায়গা থেকে, কিন্তু তা বাটোয়ারা করে দেব গরিবদের মধ্যে। মনে রাখবেন, একটা গাছে অনেক ফল ফলে, কিন্তু কেউ সেটা একা খায় না। সেই ফল অনেকে মিলে খায়।”

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই মন্তব্য ঘিরে বিতর্ক তৈরি হয়েছে। বিরোধীদের কটাক্ষ, ‘অন্য জায়গা থেকে ইনকাম’ বলতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কাটমানির কথা বলছেন। কেউ কেউ বলছেন, সাধারণ মানুষের ওপর অতিরিক্ত কর চাপিয়ে আয় বাড়াতে চাইছেন তিনি। কংগ্রেস বিধায়ক মিল্টন রশিদ বলেছেন, “অন্য কোথা থেকে সরকার আয় করবে তার জবাব বিধানসভায় মুখ্যমন্ত্রীকে দিতে হবে।”

সারাজীবন ফ্রি-তে রেশন দেওয়ার প্রসঙ্গে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ ঘোষ বলেন “রেশনে বিনামূল্যে চাল দেওয়া যায় তো এতদিন কেন দেননি উনি? পশ্চিমবঙ্গের বাইরে ভারতবর্ষে কোথায় ২ টাকা কিলো দরে চাল আর পোকায় ধরা গম খেতে হয়?”

মমতাকে দিলীপের কটাক্ষ, “আপনার কাছে চাকরি নেই, রেশন নেই। যে রেশনটা পাঠিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী সেটাই তো পৌঁছে দিতে পারেননি। রাস্তায় লুঠ হয়ে গিয়েছে।”

স্বামীর সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে বস্ত্র ব্যবসাকে অন্যমাত্রা দিয়েছেন।'প্রশ্ন অনেকে'-এ মুখোমুখি দশভূজা স্বর্ণালী কাঞ্জিলাল I