বেঙ্গালুরু: খেলোয়াড় বা টিম ইন্ডিয়ার কোচিং দুই ক্ষেত্রেই তাঁর স্বভাবসিদ্ধ শান্ত থাকার পরিচয় রেখেছেন অনিল কুম্বলে৷ কিন্তু কিংবদন্তি এই লেগ-স্পিনারের ভারতীয় দলের কোচিং কেরিয়ার মোটের মধুর ছিল না৷ সফল হওয়ার সত্ত্বেও ক্যাপ্টেন কোহিলর না-পসন্দ হওয়ায় টিম ইন্ডিয়ার প্রধান কোচের চাকরি ছাড়তে বাধ্য হন জেন্টেলম্যান গেমস-এর জেন্টেলম্যান ক্রিকেটার৷

ভারতীয় দলের কোচিং উপভোগ করলেও কুম্বলের আক্ষেপ, শেষটা আরও একটু ভালো হতে পারত৷ সম্প্রতি ইনস্টাগ্রাম লাইভ সেশনে জিম্বাবোয়ের প্রাক্তন পেসার পমমি এমবাংওয়ার সঙ্গে আলোচনায় প্রাক্তন টিম ইন্ডিয়ার কোচ বলেন, ‘ভারতীয় দলের কোচ হতে পেরে আমি খুশি হয়েছিলাম৷ এটা দারুণ অনুভূতি৷ এক বছর দলের সঙ্গে কাটানোর অভিজ্ঞতা ছিল চমৎকার৷ দলের পারফরম্যান্স দারুণ ছিল৷ ফের ভারতীয় দলের ড্রেসিংরুমের অংশ হওয়াটা ছিল দারুণ অনুভুতি৷ এক বছর আমরা দারুণ কাটিয়েছি৷ আমার কোনও আক্ষেপ নেই, তবে শেষটা আর একটু ভালো হতেই পারত৷’

২০১৭ চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি ফাইনালের পর হঠাৎ করেই ভারতীয় দলের কোচের পদ থেকে সরে দাঁড়ান কুম্বলে৷ তাঁক কোচিং ভারত চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে উঠেছিল৷ কিন্তু ফাইনালে পাকিস্তানের কাছে হারে ভারত৷ তবে পুরো টুর্নামেন্টে কোচের সঙ্গে মতপ্রার্থক্য দেখা যায় ক্যাপ্টন কোহলির৷ যদিও বিরাট বিতর্কের কথা অস্বীকার করেন৷ তবে ফাইনালের দু’দিন পর কোচের পদ থেকে ইস্তফা দেন কুম্বলে৷

কোচ হিসেবে বোর্ড তাঁকে কাজ চালিয়ে যেতে বললেও কিন্তু সরে দাঁড়ানোর এটাই সেরা সময় বলে মনে করেছিলেন কিংবদন্ত এই লেগ-স্পিনার৷ কুম্বলে বলেন, ‘কোচ হিসেবে তুমি উপলব্ধি করবে, কখন তোমার সরে দাঁড়ানোর সময়৷ আমি খুশি, যে এক বছর আমি দলকে কিছু দিতে পেরেছি৷’ কুম্বলের কোচিংয়ে এক বছরে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি ফাইনাল ছাড়াও ভারতীয় দল আইসিসি টেস্ট ব়্যাংকিংয়ে এক নম্বর স্থান দখল করে৷

আইপিএলে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের তিন বছর মেন্টর হিসেবে কাঠানোর পর কিছু দিন পরিবারের সঙ্গে কাটানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন কুম্বলে৷ কিন্তু ২০১৬ সালে ভারতীয় দলের প্রধান কোচের বিজ্ঞাপন দেখার পর পরিবারের সঙ্গে কথা বলে আবেদন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন টিম ইন্ডিয়ার প্রাক্তন এই কর্নাটকী৷ মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের মেন্টর হিসেবে প্রথম বছরেই ট্রফি জেতে নীতা আম্বানির দল৷

কুম্বলে বলেন, ‘আমি পরিবারের সঙ্গে সময় কাটানোর জন্য ব্রেক নিয়েছিলেন৷ কারণ সেই সময় আমার ছেলেরা তাদের ছুটিতে আইপিএল ছাড়া কিছুই দেখেনি৷ তাই মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের সঙ্গে তিন বছর কাটানোর পর আমি ব্রেক নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিই৷ তবে যখন ভারতীয় দলের কোচের বিজ্ঞাপন দেখে স্ত্রী’কে জিজ্ঞেস করেছিলাম আমি আবেদন করব কিনা৷ ও আমাকে বলেছিল আমি ছেলেদের সামলে নেব, তুমি এগিয়ে যাও৷ তারপরই টিম ইন্ডিয়ার প্রধান কোচের পদে আবেদন করার সিদ্ধান্ত নিই৷ সুতরাং এর মধ্যে আমি ভুল কিছু দেখিনি৷’

রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর ও মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের পর ভারতীয় দলের প্রধান কোচের পদ সামলানো প্রাক্তন এই লেগ-স্পিনারকে ফের আইপিএলের কোচ হিসেবে দেখা যাবে৷ চলতি আইপিএলে প্রীতি জিন্টার কিংস ইলেভন পঞ্জাবের কোচের দায়িত্ব পালন করবেন কুম্বলে৷

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।