নাইরোবি:  স্ত্রীয়ের অবৈধ সম্পর্ক রয়েছে। এমনটাই চাঞ্চল্যকর অভিযোগ স্বামীর। আর সেই অভিযোগে এবং স্ত্রীর ‘প্রেম’ আটকাতে তাঁর গোপনাঙ্গে শক্তিশালী আঠা ঢেলে দেওয়ার অভিযোগ। চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ কেনিয়ার কিটুই শহরে। ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক চাঞ্চল্য তৈরি হয়েছে। ইতিমধ্যে অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অভিযুক্ত ব্যক্তির নাম ডেনিস মুমো। সেই কিটুই শহরের বাসিন্দা। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, অভিযুক্ত ইতিমধ্যে ঘটনার কথা স্বীকার করে নিয়েছে পুলিশের কাছে।

পেশায় ব্যবসায়ী ডেনিস। ব্যবসার কাছে মাঝে মধ্যেই দেশে-বিদেশে যেতে হয়। ডেনিসের অভিযোগ, তাঁর অনুপস্থিতির সুযোগ নিয়ে স্ত্রী অন্তত চার জন পুরুষের সঙ্গে সম্পর্ক গড়ে তুলেছেন। আর তার যথেষ্ট প্রমাণ তাঁর কাছে ছিল বলে দাবি ডেনিসের। ডেনিস জানিয়েছেন, স্ত্রী নাকি একজন তাঁর নগ্ন ছবিও পাঠিয়েছিলেন। এর সঙ্গেই ছিল ওই ব্যক্তির সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কে জড়ানোর হাতছানি।

ডেনিসের দাবি, এই সব দেখে তিনি তাঁর বৈবাহিক সম্পর্ক বাঁচাতেই স্ত্রীর গোপনাঙ্গে আঠা দিয়ে সিল করে দিয়েছিলেন। সম্প্রতি ব্যবসার কাজে রাওয়ান্ডা রওনা হন ডেনিস। বাড়ি থেকে যাওয়ার আগে তিনি স্ত্রীর সঙ্গে এই সব কাণ্ড করেছেন বলে চাঞ্চল্যকর অভিযোগ।

স্ত্রীয়ের গোপনাঙ্গে এভাবে আঠা ফেলে দেওয়ার ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য তৈরি হয়ে যায়। বিষয়টি জানাজানি হতেই কার্যত হৈচৈ বেঁধে যায়। এরপরেই অভিযুক্ত ডেনিসকে হাতেনাতে গ্রেফতার করা হয়। একাধিক অভিযোগ আনা হয়েছে ডেনিসের বিরুদ্ধে। শুধু তাই নয়, স্ত্রীয়ের এহেন কুকীর্তির কারণে তাঁর বিরুদ্ধেও একাধিক ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে।