স্টাফ রিপোর্টার, হাওড়া: ট্যাক্সিচালকের মানবিক মুখের সাক্ষী থাকল অমানবিক শহর।

গাড়ির ধাক্কায় রাস্তায় রক্তাক্ত অবস্থায় যন্ত্রনায় কাতরাতে থাকা পথচারির পাশে বিপদের সময় পাশে দাঁড়িয়ে বন্ধুর হাত বাড়িয়ে দিলেন এক ট্যাক্সিচালক।

আরও প্রুন- গোয়েন্দারা নিশ্চিত, দেহরক্ষীর সঙ্গেই ভিন রাজ্যে ভারতী

প্রথমে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেননি কেউই। পরে ওই সহৃদয় ট্যাক্সি চালক তাঁকে রাস্তা থেকে তুলে হাসপাতালে ভর্ত্তির ব্যবস্থা করে দেন। এতেই প্রাণ বাঁচে জখম পথচারির। ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার হাওড়ার বঙ্কিম সেতুতে।

জানা গিয়েছে, হুগলীর কোন্নগরের বাসিন্দা রেল কর্মচারি কালীপদ ব্রহ্ম এদিন যখন বঙ্কিম সেতুর উপর রাস্তা পার হচ্ছিলেন সেই সময় হাওড়াগামী এক ওলা ক্যাবের চালক তাঁকে ধাক্কা মেরে ফোরশোর রোডের দিকে পালিয়ে যান। গুরুতর জখম অবস্থায় কালীপদবাবু রাস্তায় লুটিয়ে পড়েন।

অভিযোগ, কেউ সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেননি। কিছুক্ষণ পর এক সহৃদয় ট্যাক্সি চালক রাজেশ যাদব নিজে এগিয়ে এসে আহত কালীপদবাবুকে হাওড়া জেলা হাসপাতালে নিয়ে আসেন। হাসপাতাল সূত্রের খবর, কালীপদবাবুর অবস্থা আশঙ্কাজনক। ওলা ক্যবের চালকের খোঁজ চলছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।