ওয়াশিংটন:  খরচ কমাতে কর্মী ছাঁটাই করতে চলেছে কম্পিউটার নির্মাতা সংস্থা এইচপি। এমনটাই বিজ্ঞপ্তি দিয়ে জানানো হয়েছে সংস্থার তরফে। বিভিন্ন প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়েছে যে, কর্মীদের পক্ষ থেকে সংস্থার ছেড়ে যাওয়া এবং স্বেচ্ছায় অবসরের মাধ্যমে সাত থেকে নয় হাজার কর্মী ছাঁটাই করা হবে।

এভাবে ২০২২ অর্থ বছর নাগাদ সংস্থাটি অন্তত ১০০ কোটি মার্কিন ডলার ব্যয় কমাতে পারবে বলে মনে করা হচ্ছে। মার্কিন সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনে জমা দেওয়া নথি অনুযায়ী অক্টোবরের ৩১ তারিখ পর্যন্ত বিশ্বজুড়ে সংস্থাতে কর্মরত রয়েছেন প্রায় ৫৫ হাজার কর্মী।

এইচপি’র পক্ষ থেকে জানানো হয়, ১০০ কোটির মধ্যে ১০ কোটি মার্কিন ডলার খরচ কমবে এই অর্থবছরের শেষ তিন মাসে। সংস্থার তরফে দেওয়া বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে যে, “পরবর্তী ধাপে আমরা আরও কার্যকরী সিদ্ধান্ত নিতে যাচ্ছি। সংস্থার শেয়ার হোল্ডারদের মান বাড়ানোর ক্ষেত্রে অনেক ভালো সুযোগ রয়েছে এবং আমরা আমাদের নেতৃত্বকে সামনে এগিয়ে নিয়ে এই সুযোগকে কাজে লাগাতে চাই।

আগামীদিনে এইচপি নতুন করে এক ধারায় এগিয়ে নিয়ে যাওয়া হবে বলে মনে করা হচ্ছে। এইচপি’র পক্ষ থেকে আরও জানানো হয়, ৩০ সেপ্টেম্বর তাদের বোর্ড আরও ৫০০ কোটি ডলার মূল্যের শেয়ার বাইব্যকের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

সংস্থা আশা করছে ২০২০ অর্থবছরে অন্তত ৩০০ কোটি মার্কিন ডলারের নগদ অর্থ প্রবাহ তৈরি করতে পারবে এবং এর ৭৫ শতাংশ বিনিয়োগকারীর কাছে পৌঁছবে শেয়ার বাইব্যক এবং প্রতি প্রান্তিকে ১০ শতাংশ বাড়তি লভ্যাংশ প্রদানের মাধ্যমে। ২০২০ অর্থবছরে প্রতি শেয়ার থেকে আয় ২.২২ থেকে ২.৩২ মার্কিন ডলার বৃদ্ধি করতে চায় সংস্থাটি। সেই হিসেবে সংস্থাটি এই অর্থবছরের তৃতীয় প্রান্তিকে শেয়ার থেকে আয় ২.১৮ থেকে ২.২২ মার্কিন ডলার বৃদ্ধি করবে বলে আশা করছে।